ফিলিস্তিনিদের অস্ত্র দেবে ইরান

প্রকাশ: ২৬ আগস্ট ২০১৪

এএফপি

ইরানে ইসরায়েলের গোয়েন্দা ড্রোন চালানোর প্রতিশোধ নিতে এবার ফিলিস্তিনিদের অস্ত্র দেওয়ার হুমকি দিয়েছে তেহরান। সোমবার এক সামরিক কমান্ডারের বরাতে এ খবর নিশ্চিত করে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যম। এর আগে শনিবার ইসরায়েলি গোয়েন্দা ড্রোন 'হার্মেস' ভূপাতিত করে ইরানের 'রেভলিউশনারি গার্ডস'। এ বিষয়ে ইরানের বিশেষ 'রেভলিউশনারি গার্ডস' এয়ার ফোর্স কমান্ডার জেনারেল আসির আলি হাজিজাদেহ বলেন, ফিলিস্তিনের পশ্চিম তীরে আমরা দ্রুত অস্ত্র পাঠাব। আমরা যে কোনো প্রতিক্রিয়া দেখানোর অধিকার রাখি। সোমবার ইরানের নাতানজে ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ কেন্দ্রের ওপর দিয়ে চক্কর দেওয়ার সময় ওই ড্রোনটিকে বিমানবিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্রের আঘাতে ভূপাতিত করা হয়। ড্রোনটি রাডার ফাঁকি দিতে সক্ষম বলে দাবি করেছে রেভলিউশনারি গার্ড। তবে ইরানের এ দাবির ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করেনি ইসরায়েল। ইরানের প্রধান ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ কেন্দ্র নাতানজে প্রায় ১৬ হাজার সমৃদ্ধ ইউরেনিয়াম সেন্ট্রিফিউজ রয়েছে। এদিকে ইরান ফিলিস্তিনি হামাস গোষ্ঠী ও ইসলামিক জেহাদকে রকেট প্রযুক্তি সরবরাহ করেছে বলেও নিশ্চিত করেছে। চলমান গাজা সংকটে ৮ জুলাই থেকে ইসরায়েলে হামাস যোদ্ধাদের নিক্ষিপ্ত রকেট ইরানের প্রযুক্তিতেই তৈরি। ইসরায়েল 'ক্ষিপ্ত কুকুর' কিংবা 'বন্য চিতা'র মতো বর্বর আচরণ করছে। তারা মানববিধ্বংসী হয়ে উঠেছে। তাদেরকে প্রতিরোধ করা উচিত_ গত মাসে ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ আলি খামেনি এসব মন্তব্য করার পাশাপাশি ফিলিস্তিনকে সমরাস্ত্র সরবরাহের জন্য মুসলিম বিশ্বের প্রতি আহ্বান জানিয়েছিলেন।
এদিকে ইসরায়েলি বিমান হামলায় গতকাল ৪ জন নিহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে দু'জন নারী এবং একটি শিশুও রয়েছে। টানা সাত সপ্তাহের হামলায় গাজা উপত্যকায় মৃতের সংখ্যা ২ হাজার ১২৪ ছাড়িয়ে গেছে।