চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতি নির্বাচন

সভাপতি মিশা সওদাগর, সাধারণ সম্পাদক জায়েদ খান

প্রকাশ: ০৭ মে ২০১৭      

আনন্দ প্রতিদিন প্রতিবেদক

বাংলাদেশ চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচনে সভাপতি হিসেবে বিপুল ভোটে জয়লাভ করেছেন খল-অভিনেতা মিশা সওদাগর। তিনি পেয়েছেন ২৫৯ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ওমরসানী পেয়েছেন ১৫৩ ভোট। আর ২৭৯ ভোট পেয়ে সাধারণ সম্পাদক হয়েছেন জায়েদ খান। একই পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে অমিত হাসান পেয়েছেন ১৪৫ ভোট। অন্যদিকে সহ-সভাপতির দুটি পদে নির্বাচিত হয়েছেন চিত্রনায়ক রিয়াজ ও নাদির খান। তারা পেয়েছেন যথাক্রমে ৩২৮ ও ২৬৫ ভোট।
শনিবার সকালে শিল্পী সমিতির দ্বিবার্ষিক নির্বাচনের ফল ঘোষণা করেন নির্বাচন কমিশনারের দায়িত্বে থাকা মনতাজুর রহমান আকবর। তিনি জানান, নির্বাচনে বিজয়ীরা আগামী দুই বছর এই সমিতির দায়িত্ব পালন করবেন।
এবারের নির্বাচনে ২১টি পদের বিপরীতে ৫৭ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন। মোট ভোটারের সংখ্যা ছিল ৬২৪ জন। এর মধ্যে ভোট দিয়েছেন ৫৫৮ জন।
ভোটে অন্যান্য পদে নির্বাচিত হয়েছেন আরমান [সহ-সাধারণ সম্পাদক], সুব্রত [সাংগঠনিক সম্পাদক], ইমন [আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক], জাকির হোসেন [ক্রীড়া ও সংস্কৃতিবিষয়ক সম্পাদক], জ্যাকি আলমগীর [দপ্তর ও প্রচার সম্পাদক] এবং কমল [কোষাধ্যক্ষ]। এ ছাড়া কার্যকরী পরিষদের ১১টি পদের মধ্যে সর্বোচ্চ ভোটে সাইমন সাদিক [৩৬১], মৌসুমী [৩৪৯], রোজিনা [৩৪৪], সুশান্ত [৩৪২], জেসমিন [৩২৬], অঞ্জনা সুলতানা [৩২২], আলীরাজ [৩০৩], পপি [৩০২], নাসরিন [২৬৮], পূর্ণিমা [২৮২] এবং ফেরদৌস [২৬১] নির্বাচিত হয়েছেন।
শুক্রবার সকাল ৯টা থেকে ভোট গ্রহণ কার্যক্রম শুরু হয়। চলে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত। ২০১৭-১৮ সালে বাংলাদেশ শিল্পী সমিতির নির্বাচনে এবার তিনটি প্যানেল ওমরসানী-অমিত হাসান, মিশা সওদাগর-জায়েদ খান এবং ড্যানি সিডাক-ইলিয়াস কোবরা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে। স্বতন্ত্রভাবে নির্বাচনে অংশ নেন ২ জন প্রার্থী।