এসএসসি শিক্ষার্থীদের পড়াশোনা

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি

প্রকাশ: ২১ অক্টোবর ২০১৯      

আবু সালেহ মো. সায়েম

প্রভাষক, কম্পিউটার বিজ্ঞান বিভাগ

বীরশ্রেষ্ঠ মুন্সী আবদুর রউফ পাবলিক কলেজ

ঢাকা



শিক্ষার্থী বন্ধুরা, প্রীতি ও শুভেচ্ছা নিও। আজকের পাঠশালায় তোমাদের জন্য থাকছে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি থেকে গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন নিয়ে আলোচনা।



(গত আলোচনার পর)



১০। অর্ধপরিবাহী স্মৃতি কত প্রকার?

ক. ২ খ. ৩ গ. ৪ ঘ. ৫

১১। কোন ডিস্ক সরাসরি ফরম্যাট করা যায় না?

ক. হার্ড ডিস্ক খ. ফ্লপি ডিস্ক

গ. রিমোভ্যাবল ডিস্ক ঘ. কমপ্যাক্ট ডিস্ক

১২। কাজের গতি বাড়ানোর জন্য ব্যবহার করা হয়-

ক. RAM খ. ROM

গ. RAM Cache  ঘ. Rom Cache

১৩। জঅগ ঈধপযব-এর কত ভাগের বেশি ব্যবহার করা উচিত নয়?

ক. ১/৪ খ. ১/৩ গ. ১/২ ঘ. ৩/৪

১৪। -হচ্ছে কম্পিউটারের কর্ম এলাকা

ক. হার্ড ডিস্ক খ. ফ্লপি ডিস্ক

গ. র‌্যাম ঘ. রম

১৫। ইনপুট হিসেবে আসা তথ্যগুলো জমা হয় কোথায়?

ক. মনিটরে খ. কিবোর্ডে গ. রমে ঘ. র‌্যামে

১৬। সহায়ক স্মৃতি হলো-

র. হার্ড ডিস্ক রর. ফ্লপি ডিস্ক ররর. পেনড্রাইভ

কোনটি সঠিক?

ক. র ও রর খ. র ও ররর গ. রর ও ররর ঘ. র, রর ও ররর

১৭। গাণিতিক ফল সংরক্ষণের জন্য নির্দিষ্ট করা থাকে-

ক. প্রোগ্রাম রেজিস্টার খ. নির্দিষ্ট রেজিস্টার

গ. অ্যাকুমুলেটর রেজিস্টার

ঘ. কমপ্যাক্ট রেজিস্টার

১৮। মাইক্রো প্রসেসরের কাজ-

ক. তথ্য ইনপুট দেওয়া খ. তথ্য মুদ্রণ করা

গ. তথ্য সংরক্ষণ করা

ঘ. তথ্য প্রক্রিয়াকরণ করা

১৯। মাইক্রো প্রসেসরে থাকে-

র. জিপ ডিস্ক রর. ইনস্ট্রাকশন ররর. রেজিস্টার

কোনটি সঠিক?

ক. র খ. রর গ. রর ও ররর ঘ. র, রর ও ররর

২০। মাইক্রো প্রসেসরের- অংশটি ডাটা প্রসেসিংয়ে ব্যবহূত হয়?

ক. ALU খ.Control Unit

গ. Resister Array ঘ. Accumulator

২১। গাণিতিক যুক্তি অংশের কাজকে ভাগ করা যায়- ভাগে।

ক. ২ খ. ৩ গ. ৪ ঘ. ৫

২২। সিপিইউকে কত ভাগে ভাগ করা যায়?

ক. ২ খ. ৩ গ. ৪ ঘ. ৫

২৩। কম্পিউটার সংগঠনের প্রধান অংশ কয়টি?

ক. ২ খ. ৪ গ. ৩ ঘ. ৫

২৪। রেজিস্টার মূলত কত প্রকার?

ক. ২ খ. ৩ গ. ৪ ঘ. ৫

২৫। টেড হফ-এর তৈরি মাইক্রো প্রসেসরের নাম-

ক. মাইক্রো প্রসেসর খ. মাইক্রো মেমরি

গ. কন্ট্রোলিং চিপ

ঘ. কম্পিউটার ইন এ চিপ



উত্তর :১. গ ২. ক ৩. গ ৪. গ ৫. ক ৬. ক ৭. খ ৮. ঘ ৯. খ ১০. ক ১১. ঘ ১২. গ ১৩. ক ১৪. গ ১৫. ঘ ১৬. ঘ ১৭. গ ১৮. ঘ ১৯. গ ২০. ক ২১. খ ২২. খ ২৩. গ ২৪. ক ২৫. ঘ