কোর্টের সমালোচনায় মারে

প্রকাশ: ০৯ জুলাই ২০১৭      

স্পোর্টস ডেস্ক

উইম্বলডনের ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন অ্যান্ডি মারে। অল-ইংল্যান্ড ক্লাব কোর্টের পুরুষ এককের হট ফেভারিটও তিনি। শুক্রবার কোনোমতে তৃতীয় রাউন্ড জিতে শেষ ষোলোতে পা রেখেছেন এই স্কটিশ তারকা। ইতালির ফ্যাবিও ফগনিনির বিপক্ষে ৬-২, ৪-৬, ৬-১, ৭-৫ সেটে জিতেছেন অ্যান্ডি মারে। সেন্টার কোর্টে অসাধারণ খেলছিলেন ইতালীয় তারকা ফাবিও ফগিনিনি। যদিও চতুর্থ সেটে টানা পাঁচটি গেম জিতে ম্যাচটা শেষ পর্যন্ত জিতে নেন মারেই। শেষ ষোলোতে মারে খেলবেন অপরিচিত বেনোইত পেইরের বিপক্ষে। তৃতীয় রাউন্ডের কঠিন ম্যাচ জেতার পর মারে বলেছেন, 'ম্যাচটা ছিল উত্থান-পতনে ভরা। খুবই টেনশনের। আমার মনে হয় না যে এই ম্যাচে আমি খুব ভালো টেনিস খেলেছি। তবে যেভাবেই হোক, আমি ম্যাচটা জিতেই বেরিয়ে আসতে পেরেছি। চতুর্থ সেটটা খেলে আনন্দ পেয়েছি।'
ম্যাচ জয়ের পর ঐতিহ্যবাহী উইম্বলডনের ঘাসের কোর্টের সমালোচনা করেছেন মারে। বলেছেন, 'আমি মনে করি না আগের বছরগুলোতে কোর্টের অবস্থা যেমন ছিল তেমন আছে। বেসলাইনের সামনে ও পেছনে স্পট পড়েছে।' ফগনিনিও বলেছেন 'কোর্টের অবস্থা খারাপ।' উইম্বলডনের ১৭ নম্বর কোর্টে বৃহস্পতিবার আমেরিকান মেটেক স্যান্ডস হাঁটুর ইনজুরিতে পড়েন। কোর্ট খারাপের কারণেই এমন ইনজুরি হয়েছে বলে মনে করছেন অনেকে। ১৮ নম্বর কোর্টে গর্ত খুঁজে পেয়েছেন ফ্রান্সের ক্রিশ্চিয়ান মালাদেনোভিচ। সব মিলিয়ে অল-ইংল্যান্ড ক্লাব কোর্টের অবস্থা নিয়ে সমালোচনার সুর শোনা যাচ্ছে চারপাশে। কর্তৃপক্ষ অবশ্য বলেছে, কোর্ট তৈরির ক্ষেত্রে আগের বছরগুলোর মতোই কার্যক্রম গ্রহণ করেছিল তারা। অত্যধিক গরম ও অল্প বৃষ্টির কারণে এমনটা হয়েছে বলে মনে করছেন অনেকে। পুরুষ এককে আগের দিনের অসমাপ্ত ম্যারাথন ম্যাচে হেরে গেছেন জো উইলফ্রেড সোঙ্গা। গতকাল অসমাপ্ত ম্যাচ জিততে মাত্র ৫ মিনিট সময় নেন স্যাম কুরি। আলোকস্বল্পতার কারণে শুক্রবার বিকেলের ম্যাচটি গতকাল খেলানো হয়। শেষ পর্যন্ত দু'দিনব্যাপী ম্যাচটি ৬-২, ৩-৬, ৭-৬(৭/৫), ১-৬, ৭-৫ সেটে জিতে নিয়েছেন মার্কিন তারকা স্যাম কুরি। কোয়ার্টার ফাইনালে তিনি খেলবেন দক্ষিণ আফ্রিকার কেভিন এন্ডারসনের বিপক্ষে। গত বছর নোভাক জকোভিচকে বিদায় করে দিয়েছিলেন স্যাম কুরি। পুরুষ এককের শেষ ষোলোতে পা রেখেছেন বুলগেরিয়ার গ্রিগর দিমিত্রভ, কানাডার মাইলোস রাওনিক, চেক প্রজাতন্ত্রের টমাস বারডিচ ও ফ্রান্সের আদ্রিয়ান মানারিনো। ইসরায়েলের দুদি সেলা ৬-১, ৬-১-এ পিছিয়ে থাকা অবস্থায় ম্যাচ ছেড়ে দিলে চতুর্থ রাউন্ডে ওঠেন দিমিত্রভ। মেয়েদের এককে চতুর্থ রাউন্ডে পা রেখেছেন অ্যাঞ্জেলিক ক্যারবার, গারবিনি মুগুরুজা, সেভেতলানা কুজনেৎতসোভা এবং ম্যাগদালেনা রেব্রিকোভা। শুক্রবার স্প্যানিশ তারকা রাফায়েল নাদালও উঠেছেন চতুর্থ রাউন্ডে। তিনি ৬-১, ৬-৪, ৭-৬ (৭-৩) সেটে ক্যারেন কাশানভকে হারিয়েছেন। ম্যাচ শেষে নাদালের মন্তব্য, 'কিছু সময় ধরে আমি দারুণ খেলছিলাম। প্রথম সেটের সবটা, তার পর দ্বিতীয় সেটের মাঝামাঝি পর্যন্ত। কিন্তু তার পর থেকেই পরিস্থিতি কঠিন হয়ে উঠেছিল।' অন্য খেলার তারকাদের সামনে ম্যাচ জেতার পর নাদালের মন্তব্য, 'আমি কয়েকটা ভালো শট খেলেছি। ফোরহ্যান্ড, ব্যাকহ্যান্ড সব ধরনের। সব মিলিয়ে আমি নিজের খেলায় খুশি।' উইম্বলডনে পাঁচবার ফাইনাল খেলেছেন নাদাল। চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন দু'বার। এবার চতুর্থ রাউন্ডে নাদাল খেলবেন জাইল মুলারের বিপক্ষে। যিনি ঘাসের কোর্টে বিপজ্জনক প্রতিপক্ষ। যার সম্পর্কে নাদাল বলেছেন, 'ঘাসের কোর্ট ওর প্রিয়। আমাকে আক্রমণাত্মক টেনিস খেলতে হবে।'