টানা জয়ের রেকর্ড লিভারপুলের

প্রকাশ: ২৬ আগস্ট ২০১৯      

স্পোর্টস ডেস্ক

মাঠ ছিল নিজেদের। সাম্প্রতিক অতীতের রেকর্ডও ছিল নিজেদের পক্ষেই। সে রেকর্ডটাই শনিবার রাতে আরও একটু সমৃদ্ধ করল লিভারপুল। শক্তিশালী প্রতিপক্ষ আর্সেনালকে আরও একবার হারিয়ে প্রিমিয়ার লীগে টানা তিন ম্যাচ জয়ের স্বাদ পেল লিভারপুল। সেইসঙ্গে প্রিমিয়ার লীগ যুগে ক্লাবের সবচেয়ে বেশি টানা জয়ের রেকর্ডটাও লিখল নতুন করে। আর লীগের প্রথম দুই ম্যাচ জিতে আসা আর্সেনাল পেল প্রথম হারের তেতো স্বাদ।

অ্যানফিল্ডে শনিবার রাতের ম্যাচে শুরু থেকেই দু'দল আক্রমণ-পাল্টা আক্রমণে ব্যতিব্যস্ত রাখে প্রতিপক্ষের রক্ষণকে। তবে গোলের প্রথম ভালো সুযোগটা পেয়েছিল আর্সেনালই। লিভারপুল গোলরক্ষক আদ্রিয়ান বল বিপদমুক্ত করতে গিয়ে তুলে দিয়েছিলেন পিয়েরে-এমেরিক অবামেয়াংয়ের পায়ে। কিন্তু গ্যাবনিজ এই ফরোয়ার্ডের চিপ লক্ষ্যে থাকেনি। ৩৪তম মিনিটে গোলের আরেকটি সুযোগ নষ্ট করে আর্সেনাল, আদ্রিয়ানকে একা পেয়েও তার গায়ে বল মারেন নিকোলাস পেপে। প্রথমার্ধে প্রথম হাসিটা হাসে লিভারপুল। ৪১তম মিনিটে কর্নার থেকে উড়ে আসা বল হেডে জালে জড়িয়ে দলকে এগিয়ে নেন জোয়েল মাতিপ।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে নিজেদের ডি-বক্সে মোহামেদ সালাহর জার্সি টেনে হলুদ কার্ড দেখেন ডেভিড লুইস, পেনাল্টি পায় লিভারপুল। স্পটকিক থেকে গোল করে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন সালাহ। ৫৮ মিনিটের সময় লিভারপুলের তৃতীয় গোলটিও আসে এই মিসরীয় ফরোয়ার্ডের পা থেকেই। ৮৫তম মিনিটের সময় আর্সেনালের উরুগুইয়ান মিডফিল্ডার লুকাস তোরেইরার গোলে কেবল ব্যবধানই কমেছে।

গতবারের লীগের শেষ নয়টি ম্যাচ, আর এবারের লীগের প্রথম তিন ম্যাচ- সব মিলিয়ে নিজেদের সবশেষ ১২ ম্যাচের প্রতিটিতেই জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে লিভারপুল। প্রিমিয়ার লীগ যুগে এটিই তাদের সবচেয়ে বেশি টানা ম্যাচ জয়ের রেকর্ড। ক্লাবের সর্বকালের ইতিহাস ধরলে অবশ্য এর আগেও টানা ১২ ম্যাচ জিতেছে রেডসরা। প্রিমিয়ার লীগ শুরুর আগে ১৯৯০ সালে কেনি ডালগ্লিশের অধীনে দলটি টানা ১২ ম্যাচ জিতেছিল। পরের সপ্তাহে জিতলে এই রেকর্ডটা নতুন করে লিখতে পারবে ক্লপের দল। ২০১৭ সালের এপ্রিলে ক্রিস্টাল প্যালেসের কাছে হারের পর এ নিয়ে ৪২ ম্যাচ অপরাজিত লিভারপুল। আর আর্সেনালের বিপক্ষে তারা অপরাজিত এই নিয়ে নয় ম্যাচ - যার মধ্যে পাঁচ জয়ের বিপরীতে আছে চারটি ড্র।

দলের খেলোয়াড়দের পারফরম্যান্সে দারুণ খুশি লিভারপুল কোচ ইয়ূর্গেন ক্লপ। ম্যাচশেষে সংবাদ সম্মেলনে দলের জয়ের ক্ষুধার প্রশংসা করে তিনি বলেন, 'এই ম্যাচের বেশকিছু ব্যাপার আমাকে তৃপ্তি দিয়েছে। গত কয়েক ম্যাচে আমরা যা যা করেছিলাম, এই ম্যাচে আমরা সেগুলো আরও ভালোভাবে করতে পেরেছি। ছেলেদের মধ্যে যে জয়ের ক্ষুধা ছিল, যে উদ্যম ছিল- সেটা অসাধারণ। আমার মনে হয়, এখন আমাদের বিপক্ষে খেলাটা যে কারো জন্যই বেশ কঠিন একটা কাজ। এই তিনটা পয়েন্ট আমরা যোগ্য দল হিসেবেই পেয়েছি।'