বিশ্বকাপে ভারতের কাছে হারের অতীত ইতিহাস ভুলে যেতে বলেছেন বাবর আজম। এই বিশ্বকাপে নতুন দিনের সূচনা করতে চান তিনি। এই সৃষ্টির পথে তার অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজ করছেন পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক ও দেশটির বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। গতকাল দুবাইয়ে সংবাদ সম্মেলনে বাবর জানিয়েছেন, দেশ ছাড়ার আগে তাদের ১৯৯২ বিশ্বকাপ জয়ের অভিজ্ঞতা বলে অনুপ্রাণিত করেছেন।

আজ চিরপ্রতিদ্বন্দ্বীদের বিপক্ষে ইমরানের দেওয়া অনুপ্রেরণার কথা গতকাল সংবাদ সম্মেলনে শুনিয়েছেন বাবর আজম, 'এখানে আসার আগে তার (ইমরান খান) সঙ্গে আমরা সাক্ষাৎ করতে গিয়েছিলাম। তখন তিনি আমাদের '৯২ বিশ্বকাপের অভিজ্ঞতা শুনিয়েছিলেন। মূলত '৯২ বিশ্বকাপে মনোভাবটা কেমন ছিল, তার এবং তার দলের শরীরী ভাষাটা কেমন ছিল, সেটা তিনি তুলে ধরেছেন।' ভারতের বিপক্ষে ম্যাচের আগে পাকিস্তান দলকে অনুপ্রাণিত করতে ভার্চুয়াল মিটিং করেছেন পিসিবি চেয়ারম্যান রমিজ রাজ। সাবেক অধিনায়ক পুরো টুর্নামেন্টেই তাদের শতভাগ উজাড় করে খেলার আহ্বান জানিয়েছেন। পিসিবি চেয়ারম্যানের পরামর্শ নিয়ে বাবর বলেন, 'চেয়ারম্যান আমাদের বলেছেন, নিজেকে শান্ত রাখতে। তাহলেই নাকি সবকিছু সহজ হয়ে যাবে। বাইরের কথায় কান না দিয়ে নিজের ওপর আত্মবিশ্বাস রাখার পরামর্শও দিয়েছেন তিনি।'

সংবাদ সম্মেলনে প্রশ্নোত্তর পর্বের আগে ভারতের বিপক্ষে ম্যাচের জন্য ১২ জনের নাম ঘোষণা করেন বাবর আজম। এই ১২ জনের মধ্যে জায়গা হয়নি ওয়াসিম জুনিয়র, মোহাম্মদ নওয়াজ ও সরফরাজ আহমেদের। এরপর তিনি ১২ ম্যাচ হারের ইতিহাস ভুলে যেতে বলেন, 'সত্যি কথা বলতে, অতীতে কী হয়েছে তা নিয়ে আমরা একেবারেই ভাবছি না। আমরা নিজেদের শক্তি, সামর্থ্য ও মাঠে কীভাবে নিজেদের পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করা যায়, তা নিয়ে ভাবছি। ম্যাচের দিন যারা ভালো খেলে তারাই জেতে। নিজেকে যতটা সম্ভব চাপমুক্ত রেখে খেলার মৌলিক বিষয়গুলো ঠিক রাখতে পারবেন, ততটাই দলের জন্য ভালো হবে। আমরা ভালো ক্রিকেট খেলার চেষ্টা করব এবং ফলাফল নিজেদের পক্ষে আনার চেষ্টা করব।' বিশ্বকাপে হারলেও চার বছর আগে ভারতকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি জয়ও নাকি তাদের অনুপ্রেরণা হিসেবে কাজ করছে।

মন্তব্য করুন