শিক্ষকদের দ্বন্দ্বে পাঠদান ব্যাহত

প্রকাশ: ০৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৯      

জকিগঞ্জ (সিলেট) প্রতিনিধি

জকিগঞ্জের খলাছড়া ইউনিয়নের ডিগ্রি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষকদের মধ্যে দ্বন্দ্বের কারণে ব্যাহত হচ্ছে পাঠদান। শিক্ষকদের মধ্যে সৃষ্ট দ্বন্দ্বের ফলে এলাকায় দুটি পক্ষ মুখোমুখি অবস্থান নিয়েছে। এ নিয়ে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। গত মাসের মাসিক সমন্বয় সভায় সিদ্ধান্ত ও অফিসিয়াল নির্দেশনায় সই নেওয়াকে কেন্দ্র করে এ দ্বন্দ্বের সৃষ্টি হয়।

এ ব্যাপারে বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ও স্থানীয় অভিভাবকরা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর পৃথক দুটি আবেদন করেছেন।

সহকারী শিক্ষক হাসনা বেগম, সুরাইয়া বেগম, প্রদীপ কুমার শুক্ল ও দপ্তরি জাফর আলমগীর লিখিত অভিযোগে উল্লেখ করেন, প্রধান শিক্ষক খাদিজা বেগম চৌধুরী আলোচনাবহির্ভূত সিদ্ধান্ত রেজুলেশনে উল্লেখ করেন, অফিসিয়াল নির্দেশনায় সই দিতে চাপাচাপি করেন এবং শিক্ষার্থীদের সামনে শিক্ষকদের অকথ্য ভাষায় গালাগাল করেন। প্রধান শিক্ষক বিদ্যালয়ে ইচ্ছামতো আসা-যাওয়া করেন বলেও তারা অভিযোগে করেন।

অভিভাবকরা অভিযোগ করেন, প্রধান শিক্ষক খাদেজা বেগম ১৮ বছর এই বিদ্যালয় থাকায় নিয়ম-কানুনের কোনো তোয়াক্কা করেন না। প্রতিদিন সকাল ১১টার পর বিদ্যালয়ে আসেন। সচেতন শিক্ষদের অপমান করে এ বিদ্যালয় ছেড়ে অন্যত্র বদলি হতে বাধ্য করেন।

তবে প্রধান শিক্ষক খাদেজা বেগম চৌধুরী তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, সহকারী শিক্ষকদের জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কার্যালয়ের নির্দেশনায় সই দিতে বলা হলেও তারা তাতে সই দেননি। এ নিয়ে কথাকাটাকাটি হয়। কিছু শিÿক ক্লাসে মোবাইল ফোন ব্যবহার করেন এবং নিয়মিত ক্লাস ফাঁকি দেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বিজন কুমার সিংহ বলেন, বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তাকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এ ব্যাপারে ভারপ্রাপ্ত উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা বীরেন্দ্র চন্দ্র দাস বলেন, এ ঘটনায় দায়ী শিক্ষকদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।