উত্তরা গণভবনের হরিণশাবক শুক্লার মৃত্যু

প্রকাশ: ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৯      

নাটোর প্রতিনিধি

আদর করে নাম রাখা হয়েছিল শুক্লা। গত মঙ্গলবার ভোরে নাটোরের দিঘাপতিয়া রাজবাড়ি এবং বর্তমানের উত্তরা গণভবনের মিনি চিড়িয়াখানায় এই হরিণশাবকের জন্ম হয়। তার ভূমিষ্ট হওয়ার খবরে ছুটে এসেছিলেন জেলা প্রশাসক মোহম্মদ শাহরিয়াজসহ জেলা প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

শুক্লার চিকিৎসার জন্য উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তাকে তলব করা হয়। সদর উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা. সেলিম উদ্দিন পরামর্শ দিয়েছিলেন তাকে মায়ের বুকের দুধ খাওয়ানোর।

সেই সঙ্গে ঠাণ্ডা যেন না লাগে সেদিকে খেয়াল রাখারও পরামর্শ দেন; কিন্তু এতসবের পরও বাঁচানো যায়নি শুক্লাকে। বৃহস্পতিবার সকাল ৯টায় শুক্লা মারা যায়।