ওয়ার্ল্ড সামার গেমসে অংশ নিচ্ছে ১৫ বাকপ্রতিবন্ধী

প্রকাশ: ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯      

পাবনা অফিস

ওয়ার্ল্ড সামার গেমসে অংশ নিচ্ছে ১৫ বাকপ্রতিবন্ধী

স্পেশাল অলিম্পিকে অংশ নেওয়া পাবনার বাকপ্রতিবন্ধী খেলোয়াড়রা- সমকাল

প্রতিবন্ধকতাকে জয় করে পাবনার ১৫ বাকপ্রতিবন্ধী বিশ্ব ক্রীড়াঙ্গনে স্পেশাল অলিম্পিকসে অংশ নিয়ে জয় করেছে স্বর্ণ, রৌপ্য ও ব্রোঞ্জ পদক। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ক্রীড়ানৈপুণ্য দেখানোর পর এবার দেশের ১১০ প্রতিযোগীর সঙ্গে পাবনার ১৫ প্রতিবন্ধী স্পেশাল অলিম্পিকসের 'ওয়ার্ল্ড সামার গেমসে' অংশ নিতে আগামী ১২ মার্চ যাচ্ছে আবুধাবিতে। এখানেও ধারাবাহিক সাফল্যের আশা তাদের।

রোহান, রাজীব, আকাশ, স্বপ্না, চাঁদনী, ফাবিয়া, অনিতা, কণক, তামান্না, তানাম, খুশী, যূথী, রাব্বী, বৃষ্টি ও সাদিয়া সমবয়সী আর অন্য ছেলেমেয়েদের থেকে আলাদা। অন্যদের মতো সহজেই মনের ভাব প্রকাশ করতে পারে না তারা। তাদের ভাষা বোঝে না অন্যরা। যে কারণে মিশতে পারে না সমবয়সী অন্য ছেলেমেয়েদের সঙ্গে। কারণ তারা সবাই বাকপ্রতিবন্ধী। তাদের প্রত্যেকেরই বসবাস দারিদ্র্যসীমার নিচে। একসময় তাদের পরিবার বোঝা ভাবত। অথচ এই প্রতিবন্ধী কিশোর-কিশোরীরা কয়েক বছর ধরে আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করছে বাংলাদেশের। গত কয়েক বছরে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে অংশ নিয়ে বিপুলসংখ্যক স্বর্ণপদকসহ অন্যান্য পদক পেয়েছে তারা।

এরই ধারাবাহিকতায় চলতি বছরের ১৪ মার্চ আবুধাবি ও দুবাইয়ে অনুষ্ঠেয় ওয়ার্ল্ড সামার গেমসে অংশ নিতে দেশ ছাড়ছে পাবনার এই ১৫ প্রতিবন্ধী। এখন প্রতিদিন সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত পাবনা শহীদ আমিন উদ্দিন স্টেডিয়াম ও স্টেডিয়াম-সংলগ্ন জিমনেশিয়ামে চলছে তাদের অনুশীলন।

অংশ নিতে যাওয়া দুই প্রতিযোগী ইশারায় বলে, দেশের জন্য খেলতে পেরে তারা নিজেদের গর্বিত মনে করছে। নিজেদের সফলতা আর দেশের জন্য সম্মান বয়ে আনার প্রত্যাশায় তারা সবার কাছে দোয়াও চেয়েছে।

স্পেশাল অলিম্পিসের পরিচালক ও পাবনা সাব-চ্যাপ্টারের সাধারণ সম্পাদক মো. রেজাউল হোসেন বাদশা বলেন, একজন প্রতিবন্ধী খেলোয়াড় নিয়ে শুরু হলেও এর সংখ্যা আজ বেড়ে দাঁড়িয়েছে বহুগুণে। সরকারি ও বেসরকারি উদ্যোক্তাদের সহযোগিতা আরও বেশি পেলে তারা আরও ভালো করবে বলে তিনি মনে করেন।