বড়াইগ্রামে এক মাদ্রাসাপড়ূয়া ছাত্রীর শ্নীলতাহানির অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় অভিযুক্তের বাবাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে পুলিশ। নির্যাতিত ছাত্রী জানায়, উপজেলার আহম্মেদপুর এলাকায় এক মাদ্রাসার আবাসিক ছাত্রী সে। বৃহস্পতিবার রাতে চাপকলের পানি নিতে সীমানাপ্রাচীরের বাইরে যায় সেসহ তিনজন। এ সময় হঠাৎ স্থানীয় রাব্বী হোসেন, তার বন্ধু আরিফ হোসেনসহ পাঁচ-ছয়জন এসে তার মুখ চেপে ধরে পাশের আম বাগানে নিয়ে শ্নীলতাহানি করে। পরে তার এবং সঙ্গী দু'জনের চিৎকারে প্রতিবেশীরা এসে তাকে উদ্ধার করে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

শুক্রবার বিকেলে অভিযুক্ত রাব্বীর বাবা আব্দুর রশিদকে আটক করেছে পুলিশ।বড়াইগ্রাম থানার ওসি আনোয়ারুল ইসলাম  বলেন, অভিযোগের ভিত্তিতে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

মন্তব্য করুন