বাংলাদেশ-ভারত ফ্রেন্ডশিপ পাইপলাইন প্রকল্পের পাইপ পরিবহনকারী ট্রাক্টরের চাপায় তানভীর নামে তিন বছরের এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। সোমবার সকালে পঞ্চগড় উপজেলা সদরের যতনপুকুরী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। তানভীর ওই গ্রামের পরিবহন শ্রমিক তাহেরুল ইসলামের ছেলে। ঘটনার পর ট্রাক্টর রেখে চালক পালিয়ে যায়।

খবর পেয়ে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক আব্দুল মান্নানসহ পুলিশ ও প্রশাসনের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। পরে জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে জেলা প্রশাসক ড. সাবিনা ইয়াসমিন তাৎক্ষণিক শিশুটির পরিবারকে এক লাখ টাকার নগদ আর্থিক সহায়তা দেন।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, ভারত থেকে তেল আমদানির জন্য পঞ্চগড় সদর উপজেলার ধাক্কামারা ইউনিয়নের যতনপুকুরী গ্রামে বাংলাদেশ-ভারত ফ্রেন্ডশিপ পাইপলাইন প্রকল্পের কাজ চলছে। তিন বছরের শিশু তানভীর বাড়ির সামনে পাইপ বোঝাই অবস্থায় দাঁড়ানো ওই ট্রাক্টরের ভেতরে খেলা করছিল। এদিকে চালক কোনো কিছু না দেখেই ট্রাক্টর চালু করেন। এ সময় শিশুটি চাকার নিচে চাপা পড়ে ঘটনাস্থলেই মারা যায়। পরে পুলিশ শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠায়।

সদর উপজেলার ধাক্কামারা ইউপি চেয়ারম্যান আওরঙ্গজেব বলেন, তাহেরুলের বাড়ির সামনেই পাইপ বোঝাই ট্রাক্টরটি দাঁড়ানো ছিল। ট্রাক্টরের ভেতরে শিশুটি খেলছিল তা চালক খেয়াল করেননি। ট্রাক্টরচালক গাড়িটি চালু করার সময় খেয়াল করলেই হয়তো শিশুটি প্রাণে বেঁচে যেত।

পঞ্চগড় সদর থানা পুলিশের এসআই আব্দুল কাইয়ুম বলেন, ট্রাক্টরের চাপায় নিহত শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ পঞ্চগড় আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

মন্তব্য করুন