শেষ সম্বল ৫ শতক জমি বিক্রি করে দেওয়াই কাল হয় বৃদ্ধ হাবিবুর রহমানের। ছেলেরা ক্ষিপ্ত হয়ে তাকেসহ তার দ্বিতীয় স্ত্রী সূর্য খাতুনকে বাড়ি থেকে বের করে দেয়। কোথাও আশ্রয় না পেয়ে শীতের রাতে রাস্তায় রাস্তায় ঘুরছিলেন বৃদ্ধ দম্পতি। এ খবর পেয়ে একটি টিম পাঠিয়ে তাদের উদ্ধার করে আনতে বলেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তমাল হোসেন। এর পর শীতবস্ত্রসহ খাবার দিয়ে ওই বৃদ্ধ দম্পতিকে নিজ ঘরে তুলে দেন তিনি। সেইসঙ্গে ছেলেমেয়েদের কড়া হুঁশিয়ারিও দিয়ে আসেন। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার রাতে গুরুদাসপুর উপজেলার মহারাজপুর গ্রামে।

বৃদ্ধ হাবিবুর রহমান জানান, বাধ্য হয়ে শেষ জীবনে পথ চলার সঙ্গী পেতে দ্বিতীয় বিয়ে করেছিলেন। ছেলেমেয়েরা তাকে ভরণপোষণ

দেয় না। এজন্য নিজের কিছু

জমি বিক্রি করে দিয়েছিলেন খাওয়া খরচের জন্য। তাই ছেলেরা ক্ষুব্ধ হয়ে তাকে বাড়ি থেকে বের করে দেয়।

মন্তব্য করুন