মালয়েশিয়ার পামঅয়েল আমদানি বন্ধ ভারতের

প্রকাশ: ১৫ জানুয়ারি ২০২০      

সমকাল ডেস্ক

মালয়েশিয়া থেকে পামসহ সব ধরনের পণ্য আমদানি বন্ধ করেছেন ভারতের ব্যবসায়ীরা। কূটনৈতিক সম্পর্কে ফাটল ধরায় সরকার নিজ দেশের আমদানিকারকদের মালয়েশিয়া থেকে পামঅয়েল না কিনতে আহ্বান জানায়। এরপরই ব্যবসায়ীরা কুয়ালালামপুর থেকে পাম কেনা বন্ধ করেন বলে সরকারি সূত্রে জানা গেছে। এদিকে মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ তেল রপ্তানির ক্ষেত্রে ভারতের নতুন অবরোধে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। তবে গতকাল মঙ্গলবার তিনি বলেছেন, তার দেশ অর্থনৈতিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হলেও অন্যায়ের বিরুদ্ধে তিনি সব সময় সোচ্চার থাকবেন। কাশ্মীর পরিস্থিতি ও মুসলমানবিদ্বেষী নাগরিকত্ব আইন নিয়ে মাহাথির মোহাম্মদ ভারত সরকারের সমালোচনার জেরেই দিল্লি এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। খবর রয়টার্স ও বিজনেস স্ট্যান্ডার্ডের।

মূলত ইন্দোনেশিয়া ও মালয়েশিয়া থেকে বার্ষিক ৯ মিলিয়ন টনের বেশি পামঅয়েল আমদানি করে ভারত। তবে কাশ্মীর ইস্যু ও নাগরিকত্ব আইন নিয়ে মাহাথির কথা বলার পর গত সপ্তাহে মালয়েশিয়া থেকে পামঅয়েল আমদানির বিষয়ে ফের ব্যবসায়ীদের সতর্ক করে দেয় দিল্লি। ফলে ভারতীয় আমদানিকারকরা কুয়ালামপুর থেকে কোনো অপরিশোধিত বা পরিশোধিত পামঅয়েল কিনছেন না। কমপক্ষে পাঁচটি প্রতিষ্ঠান বিষয়টি নিশ্চিত করেছে। শীর্ষস্থানীয় একজন রিফাইনার বলেছেন, সরকারিভাবে মালয়েশিয়া থেকে অপরিশোধিত পামঅয়েল আমদানিতে নিষেধাজ্ঞা নেই। ক্রেতারা এখন ইন্দোনেশিয়া থেকে আমদানি করছেন। ২০১৯ সালের অক্টোবরেও ব্যবসায়ীরা একইভাবে মালয়েশিয়ার পামওয়েল আমদানি বন্ধ করেন।