গত বছর বিশ্বের বিভিন্ন স্থানে যুদ্ধক্ষেত্রে সাড়ে আট হাজারের বেশি শিশু সৈনিককে ব্যবহার করা হয়েছে এবং নিহত হয়েছে দুই হাজার সাতশর মতো শিশু। গত সোমবার জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে শিশুবিষয়ক বার্ষিক এক প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে এসেছে। জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস প্রতিবেদনটি উপস্থাপন করেন। খবর রয়টার্সের।

বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে যুদ্ধবিক্ষুব্ধ এলাকায় শিশু হত্যা, তাদের পঙ্গুত্ববরণ করা ও যৌন নির্যাতন, অপহরণ কিংবা সেনা হিসেবে নিয়োগ করা, শিক্ষা এবং চিকিৎসাসেবা থেকে বঞ্চিত করার চিত্র তুলে ধরা হয়েছে প্রতিবেদনে। প্রতিবেদনে অন্তত ২১টি স্থানে ১৯ হাজার ৩৭৯ শিশুর ক্ষেত্রে অধিকার লঙ্ঘনের ঘটনা চিহ্নিত করার কথা বলা হয়েছে। ২০২০ সালে শিশু অধিকার লঙ্ঘনের ঘটনা বেশি ঘটেছে সোমালিয়া, কঙ্গো, আফগানিস্তান, সিরিয়া ও ইয়েমেনে। এ ছাড়া গত বছর আট হাজার ৫২১ শিশুসেনা ব্যবহার করা হয়েছে যুদ্ধক্ষেত্রে। এ সময়ে দুই হাজার ৬৭৪ জন শিশু নিহত এবং পাঁচ হাজার ৭৪৮ শিশু আহত হয়েছে। শিশু সুরক্ষা নিশ্চিতে দেশগুলোর ওপর চাপ সৃষ্টিই মূলত এই তালিকার লক্ষ্য।

বিষয় : জাতিসংঘের প্রতিবেদন জাতিসংঘ

মন্তব্য করুন