বিজেপি ছাড়ার ঘোষণা দিয়েছেন ভারতের সাবেক মন্ত্রী ও পশ্চিমবঙ্গের আসানসোলের সাংসদ বলিউডের গায়ক বাবুল সুপ্রিয়। গতকাল শনিবার ফেসবুক পোস্টে এ ঘোষণা দেওয়ার পর প্রায় এক ঘণ্টা বাদে আরেক পোস্টে লিখেছেন, সাংসদ পদও ছেড়ে দিচ্ছেন তিনি। তবে আপাতত অন্য কোনো দলে যাচ্ছেন না।

বিজেপির পশ্চিমবঙ্গ শাখার সভাপতি দিলীপ ঘোষের সঙ্গে দূরত্ব ছিল বাবুলের। এ নিয়ে তাদের মধ্যে পাল্টাপাল্টি কথা চালাচালি চলছিল। সেই সঙ্গে কিছু বিষয়ে তৃণমূল কংগ্রেসের প্রশংসাও করেছেন তিনি। যে কারণে ভবিষ্যতে তার তৃণমূলে যোগ দেওয়ার সম্ভাবনা একেবারে উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না। গতকাল ফেসবুকে বাবুল লিখেছেন, 'রাজনীতির বাইরে থেকেও সমাজসেবা করা যায়। পরিবারের সবার সঙ্গে আলোচনা করে রাজনীতি থেকে সরে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিলাম।' ২০১৪ ও ২০১৯ সালে লোকসভা নির্বাচনে আসানসোল থেকে বিজেপির এমপি হন বাবুল। দু'বারই প্রতিমন্ত্রীও হন। সম্প্রতি দায়িত্ব থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে তাকে। ফেসবুকে তা নিয়ে উষ্ফ্মাও প্রকাশ করেছিলেন তিনি। সেই থেকে তাকে ঘিরে পশ্চিমবঙ্গের রাজনীতিতে আলোচনা-সমালোচনা চলছিল। অনেকে বলছিলেন, বিজেপি ছেড়ে দিতে পারেন তিনি। গতকাল সেটিই সত্য প্রমাণ করলেন তিনি। এর আগেও রাজনীতি ছাড়ার কথা ভেবেছেন বাবুল। গতকাল ফেসবুকে সে কথাও লিখেছেন, 'বিগত কয়েক দিনে বারবার অমিত শাহ ও নাড্ডাজির কাছে রাজনীতি ছাড়ার প্রস্তাব নিয়ে গেছি। প্রতিবারই তারা আমাকে নানাভাবে অনুপ্রাণিত করে ফিরিয়ে দিয়েছেন।' বাবুল আরও লিখেছেন, 'ফের দল ছাড়ার কথা জানাতে গেলে তারা ভাবতেই পারেন যে, আমি কোনো পদের জন্য বার্গেইন করছি।'

ফেসবুক পোস্টে তিনি লিখেছেন, প্রশ্ন উঠবেই- কেনইবা রাজনীতি ছাড়তে গেছিলাম। মন্ত্রিত্ব চলে যাওয়ার সঙ্গে এর কি কোনো সম্পর্ক আছে? 'হ্যাঁ, কিছুটা তো আছে নিশ্চয়ই।'

মন্তব্য করুন