ক্যাম্পাস

ক্যাম্পাস


ক্যারিয়ার ভিত্তিক কোর্স

হোটেল ম্যানেজমেন্ট

প্রকাশ: ২১ জানুয়ারি ২০২০      

ফারজানা আক্তার

পেশা হিসেবে হোটেল ম্যানেজমেন্ট বর্তমান সময়ের আকাঙ্ক্ষিত পেশা। তরুণ প্রজন্মের কাছে এ পেশার চাহিদা দিন দিন বাড়ছে। বর্তমানে হোটেল অ্যান্ড ট্যুরিজম ম্যানেজমেন্ট একটি অপার সম্ভাবনাময় শিল্পে পরিণত হয়েছে এবং বিশ্বের অন্যান্য দেশের পাশাপাশি বাংলাদেশেও এর প্রচুর কর্মসংস্থানের সুযোগ রয়েছে। বর্তমানে দেশে অসংখ্যা হোটেল, মোটেল ও রেস্টুরেন্ট রয়েছে এবং এ বছর দেশে নতুন আরও প্রায় ১২টি হোটেল যাত্রা শুরু করবে, যেখানে প্রায় ৩ হাজারের অধিক দক্ষ লোকের কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি হবে, এসব দিক সামনে রেখে বাংলাদেশ স্কিল ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউট (বিএসডিআই) ২০০৩ সাল থেকে কনফেডারেশন অব ট্যুরিজম অ্যান্ড হসপিটালিটি (সিটিএইচ) ইউকের অধীনে ডিপার্টমেন্ট অব হোটেল অ্যান্ড ট্যুরিজমের আওতায় ডিপ্লোমা ইন হোটেল ও ডিপ্লোমা ইন ট্যুরিজম কোর্স পরিচালনা করে আসছে। এই কোর্সে ডিপ্লোমা সম্পন্ন করে তারকা হোটেল ছাড়াও ক্যারিয়ার গড়তে পারেন এয়ারলাইন্স, হসপিটাল, চেইনশপ এবং টুর অ্যান্ড ট্রাভেল এজেন্সিতে। বাংলাদেশ স্কিল ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউটের পাসকৃত শিক্ষার্থীরা দেশে-বিদেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে উচ্চশিক্ষা গ্রহণের সুযোগ পাচ্ছে এবং দেশ-বিদেশের স্বনামধন্য হোটেল এয়ারলাইন্সে বিভিন্ন পর্যায়ে কাজ করে যাচ্ছে। ডিপার্টমেন্ট অব হোটেল অ্যান্ড ট্যুরিজমের আওতায় বিভিন্ন মেয়াদে সরকারি সনদে বেশকিছু সর্ার্টিফিকেট কোর্স রয়েছে, যেমন- ফুড অ্যান্ড বেভারেজ প্রোডাকশন, সার্ভিস, হাউস কিপিং এবং ফ্রন্ট ডেস্ক। এসব স্বল্পমেয়াদি কোর্স করে শিক্ষার্থী দেশের বিভিন্ন হোটেল, রেস্টুরেন্ট, চেইনশপে ক্যারিয়ার গড়তে পারে। কেননা, এই ইন্ডাস্ট্রিতে ফুড অ্যান্ড বেভারেজ, সার্ভিস, হাউসকিপিং এবং ফ্রন্ট ডেস্ক বিভাগগুলোই প্রধান।

ভর্তি যোগ্যতা : যে কোনো গ্রুপে এইচএসসি/ও-লেভেল অথবা সমমান পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে হবে। মেধাবী ও অসচ্ছলদের জন্য রয়েছে ১০ থেকে ১০০ ভাগ পর্যন্ত ড্যাফোডিল ফাউন্ডেশন কর্তৃক স্কলারশিপের সুবিধা। মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও নারী শিক্ষার্থীদের জন্য রয়েছে বিশেষ স্কলারশিপের সুবিধা। বছরে চারটি সেশনে (মার্চ, জুন, সেপ্টেম্বর, ডিসেম্বর) ভর্তি কার্যক্রম পরিচালিত হয়। চাকরিজীবীরা সান্ধ্যকালীন ব্যাচে অংশগ্রহণ করতে পারেন।

যোগাযোগ :বাড়ি-২, রোড-১২, মিরপুর রোড, ধানমন্ডি, ঢাকা।

ফোন :০১৭১৩৪৯৩২৪৬, ০১৮৩৩১০২৮১০।www.bsdi-bd.org