টেকলাইন

টেকলাইন

নতুন প্রযুক্তির চমক

প্রকাশ: ২৬ আগস্ট ২০১৪

প্রাত্যহিক জীবনকে আরও আয়েশি করে তুলতে প্রতিনিয়ত উদ্ভাবিত হচ্ছে নতুন নতুন প্রযুক্তি। তৈরি হচ্ছে চমকপ্রদ প্রযুক্তি পণ্য। এসব প্রযুক্তি পণ্যের ব্যবহারে মানুষ হয়ে উঠছে আরও ডিজিটাল। এরকম কিছু ডিভাইস নিয়ে লিখেছেন তামজীদ রহমান
বহনযোগ্য সৌর চার্জার : বহনযোগ্য ডিভাইসের জনপ্রিয়তা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বহনযোগ্য চার্জারও গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠেছে। আর বহনযোগ্য চার্জারের চাহিদা মেটাতে সোলার গরিলা নামের সৌর চার্জার বাজারে এসেছে। ডিভাইসটি দেখতে স্যান্ডউইচ টোস্টারের মতো। এই চার্জার দিয়ে আইফোন, ট্যাবলেট, এসএলআর ক্যামেরা এমনকি ল্যাপটপের মতো ডিভাইসও চার্জ করা যায়। এটি সৌরশক্তিতে চলে। ডিভাইসগুলো ইউএসবি কেবল দিয়ে এটির সঙ্গে সংযুক্ত করে চার্জ দিতে হয়। দাম ১৪৫ ইউরো।
ডেলরমে ইনরিচ লোকেটর : এটিকে বহুল জনপ্রিয় অ্যাপ ফাইন্ড মাই ফ্রেন্ডের স্মার্ট সংস্করণ বলা চলে। এই ডিভাইসের মাধ্যমে বন্ধুদের ১৬০ অক্ষরবিশিষ্ট বার্তা পাঠানো যায় এবং তাদের অবস্থান ট্র্যাক করা যায়। এটি গ্গ্নোবাল স্যাটেলাইটের সঙ্গে সংযোগ স্থাপন করে থাকে বিধায় কখনও নেটওয়ার্কের বাহিরে চলে যাওয়ার ভয় নেই। এটি ১০০ ঘণ্টা পর্যন্ত চার্জ ধারণ করতে সক্ষম। শুধু তাই নয়, এটি দিয়ে আপনি সামাজিক যোগাযোগের সাইটে পোস্টও দিতে পারবেন এবং আপনার দৈনন্দিন অবস্থা সম্বন্ধে জানাতে পারবেন। এটির বাজারমূল্য ২১৬ ইউরো।
গারবার ফিট লাইট : রাতে ভ্রমণ বা ঘোরাঘুরি করা বেশ বিপজ্জনক। এক্ষেত্রে নিজেকে রক্ষা করার জন্য গারবার ফিট লাইট ব্যবহার করা যেতে পারে। এটির সঙ্গে একটি উজ্জ্বল লাইট এবং ধারালো ছুরিসহ আরও ১০ রকম ডিভাইস রয়েছে। নিজেকে রক্ষা করার কাজে বেশ উপযুক্ত একটি গেজেট এটি। এটির দাম ৪৩.১৯ ইউরো।
সনি ডিজিটাল বাইনোকুলার : বিশ্বখ্যাত প্রযুক্তিপণ্য নির্মাতা সনি কোম্পানি বাইনোকুলারের সঙ্গে ভিডিও ক্যামেরার সংমিশ্রণে এক ডিজিটাল বাইনোকুলার এনেছে। এটি ওজনেও বেশ হালকা, মাত্র ৭৬৫ গ্রাম। এটিতে ২০.৪ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা, ১৯২০ বাই ১০৮০ রেজ্যুলেশনের ভিডিও রেকর্ডিং সুবিধাসহ ডলবি স্পিকার রয়েছে। এ ছাড়া আরও বেশকিছু ক্যামেরার ফাংশন তো থাকছেই। এটির বাজারমূল্য ১৭৪৯ ইউরো।
সলো স্টোভ : আকারে ক্ষুদ্র এই সলো স্টোভটি ওজন মাত্র ২৫০ গ্রাম। এটির দ্বারা ১ লিটার পরিমাণ পানি ১০ মিনিটেরও কম সময়ে ফোটানো সক্ষম। এই স্টোভ জৈব প্রযুক্তিতে জ্বলে, তাই জ্বালানি খরচ নেই বললেই চলে। চা জাতীয় পানীয় খুব দ্রুত তৈরি করতে এর জুড়ি নেই। দাম ৬২.৯৯ ইউরো।
প্যারট এয়ার ড্রোন : আপনি যদি নিরাপদ আশ্রয়স্থলে বসেই আপনার এলাকার চারপাশ দেখতে চান তাহলে আপনার জন্য রয়েছে প্যারট এয়ার ড্রোন। এই এয়ার ড্রোন দিয়ে স্মার্টফোনের ফ্রিফ্লাইট অ্যাপের সাহায্যে সরাসরি সবকিছু দেখা যায়। শুধু তাই নয়, প্রায় ১ মাইল দূর থেকেই এটি জীবন্ত কোনোকিছু শনাক্ত করতে পারে। এটি শব্দবিহীন এবং ওজনে হালকা। এটি প্রায় ২ ঘণ্টা ভিডিও ধারণ করার মতো ক্ষমতাসম্পন্ন। কিনতে হলে ৩১৯.৯৯ ইউরো খরচ করতে হবে।
ক্যাসিও প্রো ট্র্যাক ওয়াচ কম্পাসওয়ালা এই ঘড়ি পরে পথ চলতে আপনার কোনো অসুবিধাই হবে না। পানির তলদেশে ঘড়িটি গাইড হিসেবে আপনাকে সহায়তা করবে। পানিরোধক এই ঘড়িটি পথ চলার সময় আপনার সঙ্গীর মতোই সাহায্য করবে। কম্পাস ছাড়াও এই ঘড়ির সঙ্গে একটি ব্যারোমিটার, উচ্চতা মাপক যন্ত্র এবং থার্মোমিটারও রয়েছে। দাম ১৯০ ইউরো।