রংপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে জাতীয় পার্টির (জাপা) দলীয় মনোনয়ন পেয়েছেন রংপুর মহানগর সভাপতি মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা। 

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ শনিবার রাত ৮টায় তার ঢাকার প্রেসিডেন্ট পার্ক বাসভবনে আনুষ্ঠানিকভাবে দলীয় মনোনয়নপত্র তুলে দেন। 

এ সময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য, স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী মসিউর রহমান রাঙা ও জাতীয় পার্টির মহাসচিব রুহুল আমিন হাওলাদার

রংপুর মহানগর জাতীয় পার্টির সাধারণ সম্পাদক এসএম ইয়াসির জানান, মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা জাতীয় পার্টির পরীক্ষিত সৈনিক। তিনি নানা সংকটের মধ্যেও র্দীঘদিন ধরে জাতীয় পার্টিকে শক্তিশালী করতে কাজ করে গেছেন। ইতোপূর্বে তিনি রংপুর সদর উপজেলার চেয়ারম্যানও ছিলেন, জনগণের সাথে তার সম্পৃক্ততা ভালো। তার প্রশাসনিক দক্ষতাও অনেক বেশি। দলের চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ তার পূর্বের অভিজ্ঞতা, দক্ষতা সবকিছু বিবেচনা করে তাকে দলের মনোনয়ন দিয়েছেন। 

তিনি বলেন, মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফাকে মনোনয়ন দেয়ায় দলের নেতাকর্মী ও নগরবাসী অনেক খুশি হয়েছে। আমরা জাতীয় পার্টির সকল নেতাকর্মী ঐক্যবদ্ধ আছি এবং তাকে মেয়র নির্বাচিত করতে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছি। 

এদিকে মনোনয়ন দেবার খবর রংপুরে ছড়িয়ে পড়লে জাতীয় পার্টির নেতাকর্মীরা আনন্দ-উল্লাসে মেতে উঠেন। 

জাতীয় পার্টির কর্মী নাজিম, আরমান, ইউসুফসহ অন্যান্যরা জানান, আমরা জাতীয় পার্টির মেয়র প্রার্থী হিসেবে মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফাকে মনোনয়ন দেয়ায় অত্যন্ত খুশি হয়েছি। তার জয়ে আমরা সকলে কাজ করে যাবো।

উল্লেখ্য, জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ রংপুর পাবলিক লাইব্রেরি মাঠে মহানগর জাতীয় পার্টির সমাবেশে রংপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী হিসেবে মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফার নাম ঘোষণা করেন এবং দলীয় নেতাকর্মীদেরকে পরিচিত করে দেন। এরপর তিনি রংপুর নগরীর বিভিন্ন সমাবেশে সিটি নির্বাচনে তাকে ভোট দেয়ার জন্য জনগণের প্রতি আহ্বান জানান। 

মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা রংপুর সিটি কর্পোরেশনের প্রথম নির্বাচনে দ্বিতীয় অবস্থানে ছিলেন।