ধামরাইয়ে দু’পক্ষের সংঘর্ষে যুবলীগ নেতা নিহত

প্রকাশ: ২৬ আগস্ট ২০১৮      

ধামরাই (ঢাকা) প্রতিনিধি

নিহত ওমর অালী

ঢাকার ধামরাইয়ে আড়ালিয়া বাজারে পল্লী বিদ্যুতের মিটার লাগানোকে কেন্দ্র করে দু’পক্ষের সংঘর্ষে ওমর অালী নামে এক যুবলীগ নেতা নিহত হয়েছেন। 

রোববার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। নিহত ওমর অালী ধামরাইয়ের কুল্লা ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি ছিলেন।

এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে রিপন ও সবুজ নামে দু’জনকে অাটক করেছে পুলিশ। 

পুলিশ ও নিহতের স্বজনরা জানান, ধামরাই উপজেলার আড়ালিয়া গ্রামের মৃত রিয়াজ উদ্দিনের ছেলে ওমর আলী কয়েক বছর অাগে অাড়ালিয়া বাজারে ১৮টি দোকান নির্মাণ করেন। দোকানের সবগুলো মিটার ওমর অালীর নামে রয়েছে। রোববার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ওমর অালীর ভাতিজী মুক্তা, মনিরা ও মিতুসহ তাদের স্বামী রিপন, সবুজ ও হাসান ওই দোকানগুলোর মধ্যে কয়েকটি দোকানে ওমর অালীর নাম পরিবর্তন করে নতুন বৈদ্যুতিক মিটার নিজেদের নামে লাগাতে যায়। এ সময় ওমর আলী ও তার ছেলে হাসিব ও হাসান বাধা দেয়। এতে উভয় পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এক পর্যায়ে ওমর অালী মাটিতে লুটিয়ে পড়লে স্থানীয় লোকজন তাকে সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এ ঘটনার পরই ধামরাই থানা পুলিশ রিপন ও সবুজকে অাটক করে।

ধামরাই থানার উপ-পরিদর্শক রাশেদুজ্জামান বলেন, ঘটনার সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে দু’জনকে অাটকের পর জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনার পর ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বেনজীর আহমদসহ আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে দোষীদের শাস্তি দাবি করেছেন।