ময়ছেরের সততা

প্রকাশ: ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮     আপডেট: ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৮      

এবিএম ফজলুর রহমান, পাবনা

ময়ছের শেখ। ছবি: সমকাল

পাবনার বেড়া উপজেলার ভ্যানচালক ময়ছের শেখের (৩৮) ভ্যানে একটি ব্যাগ ফেলে যান এক যাত্রী। ব্যাগটির মধ্যে ছিল আমেরিকার ভিসা, নগদ ৪০ হাজার টাকা ও আড়াই লাখ টাকা মূল্যের ডলার। ব্যাগটি পাওয়ার পর ময়ছের এর মালিককে খুঁজতে থাকেন। এক পর্যায়ে স্থানীয়দের সহায়তায় ব্যাগটির মালিক বেড়া উপজেলার আমেরিকা প্রবাসী বাবলু সিকদারকে খুঁজে বের করে সেটি তাকে ফেরত দেন। 

বেড়া উপজেলার আমিনপুর থানার কাশীনাথপুর সংলগ্ন নয়াবাড়ি এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে। ময়ছেরের বাড়ি বেড়া উপজেলার নয়াবাড়ি গ্রামে। 

স্থানীয়রা জানান, বাবলু সিকদার শনিবার দুপুরে নয়াবাড়ি রোড থেকে ময়ছেরের ভ্যানে ওঠেন। ভ্যান থেকে নেমে যাওয়ার সময় তিনি ভুলে তার সঙ্গে থাকা ব্যাগটি ফেলে যান। বাবলুর ব্যাগে তার যুক্তরাষ্ট্রের ভিসা ও অন্যান্য জরুরি কাগজপত্র ছাড়াও বাংলাদেশি ৪০ হাজার টাকা ও প্রায় আড়াই লাখ টাকার মূল্যে ইউএস ডলার ছিল। ময়ছের শেখ ব্যাগটি পেয়ে স্থানীয়দের সহায়তায় এর মালিক বাবলু সিকদারের ঠিকানা খুঁজে বের করেন। এরপর তার হাতে ব্যাগটি তুলে দেন।

এ বিষয়ে ময়ছের সমকালকে বলেন, ২০ বছর ধরে ভ্যান চালাই। জীবনে এরকম আরও দুয়েকবার টাকা-পয়সা পেয়েছি। কিন্তু পরের জিনিসের প্রতি লোভ করিনি। তাই মালিককে খুঁজে ফেরত দিয়েছি। আমার ছেলে-মেয়েকেও পরের জিনিস না নেওয়ার শিক্ষা দিয়েছি।

আর বাবলু সিকদার বলেন, ব্যাগে আমার আমেরিকা যাওয়ার ভিসা ছিল। হারিয়ে গেলে বিপদে পড়তাম। ময়ছের শেখের সততার কারণেই ব্যাগটি পেয়েছি।

ময়ছের শেখের সততায় মুগ্ধ এলাকাবাসীও। কাশীনাথপুর নাগরিক কমিটির সাধারণ সম্পাদক ডা. আমিরুল ইসলাম সানু বলেন, ময়ছের তার লোভকে সংবরণ করে সততাকে শক্তিশালী করতে পেরেছে। ঘুষ-দুর্নীতি ভরা আমাদের এই সমাজ তার কাছ থেকে শিক্ষা নিতে পারে।