বিয়ের খাবারে বিষক্রিয়া

সুনামগঞ্জে আইইডিসিআরের প্রতিনিধি দল

প্রকাশ: ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯      

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি

ফাইল ছবি

সুনামগঞ্জে বিয়ের অনুষ্ঠানের খাবার খেয়ে নারীর মৃত্যু এবং শতাধিক লোক অসুস্থ হওয়ার ঘটনায় জাতীয় রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের (আইইডিসিআর) প্রতিনিধি দল সোমবার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

গত বুধবার সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার সাদকপুর গ্রামে প্রয়াত প্রাণেশ তালুকদারের বাড়িতে বিয়ের অনুষ্ঠানের খাবার খেয়ে বর-কনেসহ শতাধিক মানুষ অসুস্থ হয়ে পড়েন। এর মধ্যে কনের আত্মীয় জলি রানী দেব গত শুক্রবার বিকেলে মারা যান। সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি কনের মা ছন্দা রানী তালুকদারের অবস্থাও আশঙ্কাজনক।

সোমবার দুপুরে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক শামসাদ রব্বানী খানের নেতৃত্বে আইইডিসিআরের সাত সদস্যের প্রতিনিধি দল ঢাকা থেকে সুনামগঞ্জ পৌঁছায়। তারা প্রথমে সদর হাসপাতালে গিয়ে চিকিৎসক এবং এ ঘটনায় হাসপাতালে ভর্তি রোগীদের সঙ্গে কথা বলেন। পরে সাদকপুর গ্রামে গিয়ে বিয়েবাড়ি এবং আশপাশের লোকজনের সঙ্গে কথা বলেন। তবে প্রতিনিধি দলের সদস্যরা সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলতে রাজি হননি।

কনের চাচা যীশুতোষ দাশ জানান, দেখা গেছে একই টেবিলে বসে খেয়েছেন। এর মধ্যে কয়েকজনের কিছুই হয়নি, আবার কেউ কেউ অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। কীভাবে কী হলো, তারা এখনও বুঝতে পারছেন না। তাদের সঙ্গে কারও শত্রুতাও নেই। গ্রামের সবাই মিলেমিশে আছেন। সবাই মিলেই বিয়ের অনুষ্ঠান করেছেন।

সুনামগঞ্জে সিভিল সার্জন আশুতোষ দাশ বলেন, খাবার থেকেই এ সমস্যা হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। ময়নাতদন্তের পর জলি রানী দেবের শরীরের নমুনা পরীক্ষার জন্য চট্টগ্রামে পাঠানো হয়েছে। এখন আইইডিসিআরের প্রতিনিধি দল পরিদর্শন করেছে। তাদের প্রতিবেদন পাওয়ার পরই প্রকৃত কারণ জানা যাবে।