ছেলেকে হত্যা করে চিৎকার করছিলেন মা নিজেই

প্রকাশ: ১৫ নভেম্বর ২০১৯      

ত্রিশাল (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি

নিজের দুই বছরের ছেলেকে শ্বাসরোধে হত্যার পর লাশ পাশের পুকুরে ফেলে দিয়েছেন মা। এরপর নিজেই চিৎকার করে প্রতিবেশীদের জানান ছেলে হত্যার কথা। বৃহস্পতিবার রাতে এ লোমহর্ষক ঘটনাটি ঘটেছে ময়মনসিংহের ত্রিশালে। ওই ঘাতক মা নাছিমা খাতুনকে আটক করেছে পুলিশ। তিনি উপজেলার রামপুর ইউনিয়নের কাকচর গ্রামের চা দোকানি আবুল কালামের স্ত্রী। নিহত শিশুটির নাম জুলহাস।

আবুল কালাম জানান, তার চার ছেলে। দুই ছেলেকে নিয়ে চায়ের দোকানের কাজ করেন। ছোট দুই ছেলে মায়ের সঙ্গে বাড়িতেই থাকত। তিনি বলেন, আমার স্ত্রীর মানসিক সমস্যা রয়েছে। হয়তো এ কারণেই এমন ঘটনা ঘটেছে।

প্রতিবেশীরা জানান, রাত ১০টার দিকে শিশু সন্তানকে খুন করে বাড়ির পাশে পুকুরে ফেলে দিয়ে নাছিমা নিজেই চিৎকার করছিলেন। প্রতিবেশীরা টের পেয়ে তার স্বামী ও ত্রিশাল থানায় খবর দেয়। পরে তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী বাড়ির পাশের পুকুর থেকে শিশু জুলহাসের লাশ উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ জানায়, শিশুটির মাথা, গলা ও ঘাড়ে আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

ত্রিশাল থানা পুলিশের এসআই সোহরাব হোসেন জানান, আসামিকে শুক্রবার আদালতে পাঠানো হয়েছে।