শেরপুরে জমি নিয়ে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নিহত ১

প্রকাশ: ২৮ ডিসেম্বর ২০১৯      

শেরপুর প্রতিনিধি

শেরপুরের শ্রীবরদী উপজেলায় জমি নিয়ে বিরোধের জেরে দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে দেলোয়ার হোসেন দেলু (৩৫) নামের এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। শনিবার সকালে উপজেলার কাকিলাকুড়া ইউনিয়নের হরিণাকান্দা গ্রামে এ ঘটনায় আহত হয়েছেন কমপক্ষে ১২ জন। 

নিহত দেলোয়ার হোসেন হরিণাকান্দা গ্রামের মৃত হামিদুর রহমানের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, দীর্ঘদিন ধরে হরিণাকান্দা গ্রামের মৃত আলাউদ্দিনের ছেলে ইব্রাহিম খলিল বাচ্চু ও শাজাহান গংদের সঙ্গে জমি নিয়ে প্রতিবেশী মৃত হামিদুর রহমানের ছেলে দেলোয়ার হোসেন ওরফে দেলুর বিরোধ চলছিল। শনিবার সকালে প্রতিবেশি লিটনের বাড়ির পাশের সড়কে দোলোয়ার হোসেনের সঙ্গে শাজাহানের স্ত্রী লাভলী বেগমের কথা কাটাকাটি হয়। এ সময় ইব্রাহিম খলিল বাচ্চু সেখানে গেলে উভয় পক্ষের মধ্যে হাতাহাতি ও ধস্তাধস্তি শুরু হয়। এক পর্যায়ে দু’পক্ষই লাঠি ও দেশীয় অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষে আহত হন দোলোয়ার হোসেন ওরফে দেলুসহ আরও বেশ কয়েকজন। পরে আহতদের উদ্ধার করে শ্রীবরদী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখান থেকে দেলোয়ার হোসেন দেলুকে জেলা সদর হাসপাতালে রেফার করা হলে বিকেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। এ ছাড়া গুরুতর আহত আজমল হোসেন, বাবু মিয়া ও বিপুল মিয়াকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে শ্রীবরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ রুহুল আমিন তালুকদার বলেন, ঘটনায় জড়িত সন্দেহে এনামুল হক, আরিফুল হক, সেতু ও মিরা ইয়াছমিন নামের চারজনকে আটক করা হয়েছে। পুলিশ সুপার কাজী আশরাফুল আজিম (পিপিএম) ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

ওসি জানান, এ ঘটনায় নিহত দেলুয়ার হোসেন দেলুর বোন শিমু আক্তার শ্রীবরদী থানায় একটি মামলা করেন।