বন বিভাগের মামলায় হালদা ভ্যালি চা বাগানের দুই কর্মকর্তা কারাগারে

প্রকাশ: ১৪ জানুয়ারি ২০২০      

চট্টগ্রাম ব্যুরো

চট্টগ্রামে সংরক্ষিত বনাঞ্চলে পাহাড় কাটার মামলায় হালদা ভ্যালি চা বাগানের ব্যবস্থাপক মুহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম এবং সহকারী ব্যবস্থাপক রাজীব আহম্মদ রানাকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত। ফটিকছড়ি উপজেলায় চা বাগানটি অবস্থিত। 

মঙ্গলবার চট্টগ্রাম বন আদালতের জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট জিহান সানজিদা এ আদেশ দেন।

আসামিপক্ষের আইনজীবী মুহাম্মদ আবু তালেব বলেন, হালদা ভ্যালি জেলা প্রশাসকের কাছ থেকে লিজ নেওয়া হয়েছে। কিন্তু বনবিভাগ তাদের জমি দাবি করে মামলা করে। ওই মামলায় দু'জন আত্মসমর্পণ করে জামিন চাইলে আদালত নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠান।

চট্টগ্রাম উত্তর বনবিভাগের আওতাধীন ফটিকছড়ি উপজেলার নারায়ণহাট রেঞ্জের বালুখালী বিটের সংরক্ষিত বনাঞ্চলে অবৈধ অনুপ্রবেশ, পাহাড়ের মাটি কাটা ও জবর দখলের অভিযোগে দুই আসামির বিরুদ্ধে মামলায় হয়। বালুখালী বিটের বিট কর্মকর্তা মোহাম্মদ নাঈমুল ইসলাম বাদী হয়ে ভূজপুর থানায় মামলা করেন। গত বছরের ২২ জুন ফটিকছড়ির রামগড়-সীতাকুণ্ডের সংরক্ষিত বনাঞ্চলে অবৈধ অনুপ্রবেশ করে গাছ কেটে নেওয়া হয়। সেই সঙ্গে পাহাড়ের মাটি কেটে নেওয়া হয়। বনবিভাগের অভিযানের সময় এ কাজে জড়িতরা পালিয়ে যান।