বিশেষ ট্রেন দেখানোর কথা বলে স্কুলছাত্রীকে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ

প্রকাশ: ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০   

রাজবাড়ী প্রতিনিধি

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

বিশেষ ট্রেন দেখানোর কথা বলে স্কুলছাত্রীকে ডেকে নিয়ে ধর্ষণ করা হয়েছে। এ ঘটনায় সোমবার ওই ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে দু'জনের নাম উল্লেখসহ তিনজনের বিরুদ্ধে রাজবাড়ী সদর থানায় মামলা করেন।

ধর্ষণের শিকার কিশোরীর বাড়ি রাজবাড়ী সদর উপজেলায়। সে স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্রী। মামলায় অভিযুক্ত দু'জন হলো রাজ্জাক ওরফে নয়ন ও জুয়েল রানা। তাদের বাড়ি গোয়ালন্দ উপজেলার বেপারীপাড়া গ্রামে।

ভুক্তভোগী কিশোরী, পরিবার ও রাজবাড়ী সদর থানা সূত্রে জানা যায়, রাজ্জাক ওরফে নয়ন নামে ওই যুবকের সঙ্গে কিশোরীর মোবাইল ফোনে পরিচয়। তাদের দু-একবার সাক্ষাতও হয়েছে। গত শনিবার রাজবাড়ী থেকে ২৪ বগির একটি বিশেষ ট্রেন ভারতের মেদিনীপুরে যায়। ওই ট্রেন দেখানোর কথা বলে নয়ন মোবাইল ফোনে ডেকে নেয় কিশোরীকে। এরপর নয়ন তাকে ফরিদপুরে নিয়ে যায়। এ সময় নয়নের সঙ্গে তার এক বন্ধুও ছিল। মেয়েটিকে ফরিদপুর শহরের একটি আবাসিক হোটেলে নিয়ে ধর্ষণ করে নয়ন। ওই দিন রাতেই তাকে অসুস্থ অবস্থায় মোটরসাইকেলে বাড়ির পাশে একটি মাঠে নামিয়ে দিয়ে পালিয়ে যায় তারা। পরদিন অসুস্থ অবস্থায় সে বাড়ি গেলে পরিবারের লোকেরা রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন।

রাজবাড়ী সদর থানার ওসি স্বপন কুমার মজুমদার জানান, ওই কিশোরীকে ধর্ষণের পর বাড়ির কাছে ফেলে রেখে গেছে। তাতে ভয়ে ওই কিশোরী ওইদিন বাড়ি না গিয়ে তার এক আত্মীয়ের বাসায় ছিল। পরে অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ব্যাপারে মামলা হয়েছে। অভিযুক্তের নাম নিয়েও সংশয় রয়েছে। তার মোবাইল ট্র্যাকিং করে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।