কলমাকান্দায় ব্যবসায়ী হত্যা: ‘নিখোঁজ’ বন্ধুসহ গ্রেফতার ২

প্রকাশ: ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০   

কলমাকান্দা (নেত্রকোণা) প্রতিনিধি

নেত্রকোণার কলমাকান্দায় কাপড় ব্যবসায়ী মিলন মিয়াকে গলাকেটে হত্যার ঘটনায় জড়িত সন্দেহে তার বন্ধু শাহজাহান (২৩) ও তার সহযোগী চা বিক্রেতা আবুল বাশারকে (১৯) গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

গ্রেফতার মো. শাহজাহান একই এলাকার সবজি ব্যবসায়ী মো. মুজিবুর রহমানের ছেলে। তিনি মোবাইলে রিচার্জ ব্যবসা করতেন। আবুল বাশার ওরফে বাদশাহ একই ইউনিয়নের হরিণাকুড়ি গ্রামের মুনছুর আলির ছেলে। তিনি চা বিক্রি করতেন।

পুলিশ জানায়, মিলন হত্যাকাণ্ডের সন্দেহভাজন প্রধান আসামি মো. শাহজাহান ও আসামি আবুল বাশারকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

শনিবার দুপুরে উপজেলার রংছাতি ইউনিয়নের কালাইকান্দি স্কুল মোড়ের ডোবা থেকে মিলনের গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করা হয়। পরে ময়নাতদন্তের জন্য ওইদিন বিকেলে নেত্রকোণা আধুনিক সদর হাসপাতালে মর্গে পাঠানো হয়। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে শনিবার ভোরে কাপড় ব্যবসায়ী ও বিকাশ এজেন্ট মিলনকে গলাকেটে হত্যা করে উপজেলার রংছাতি ইউনিয়নের কালাইকান্দি স্কুল মোড়ের ডোবায় মরদেহ ফেলে দেওয়া হয়েছে। এই ঘটনার পর থেকে শাহজাহানের খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না।

নিহত মিলন ওই এলাকার মো. কালা চাঁন মিয়ার ছোট ছেলে।

আরও জানা গেছে, মিলন ও শাহজাহান তাদের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানেই রাত্রি যাপন করতেন। তাদের দুজনের মধ্যে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক ছিল। ওই ঘটনায় ওইদিন বিকেলে কলমাকান্দা থানায় নিহত মিলনের বড় ভাই মো. শহীদুল ইসলাম বাদী হয়ে মামলা করেন। 

এ বিষয়ে কলমাকান্দা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মাজহারুল করিম জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শনিবার রাতে কলমাকান্দা সদরের রেন্টিতলা সিএনজি স্ট্যান্ড এলাকা থেকে শাহজাহান ও তার সহযোগী আসামি আবুল বাশারকে তার নিজ বাড়ি থেকে গ্রেফতার করা হয়। এ বিষয়ে পরে বিস্তারিত জানানো হবে।