প্রবাসী স্বামী দেশে ফিরলে খুশির সীমা থাকে না স্ত্রীর। কিন্তু করোনাভাইরাসের আতঙ্কে ব্যতিক্রম ঘটলো এবার। খুশি হওয়ার পরিবর্তে প্রবাসী স্বামী দেশে ফেরার খবর পেয়ে বাবার বাড়ি চলে গেছেন এক গৃহবধূ। ঘটনাটি ঘটেছে রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলায়। 

জানা গেছে, উপজেলার একটি গ্রামের ওই যুবক ৩ বছর আগে পাশের গ্রামের এক মেয়েকে বিয়ে করে মধ্যপাচ্যের দেশ কাতারে যান। বিয়ের পর স্ত্রী স্বামীর বাড়িতে অবস্থান করছিলেন। এরপর কখনও স্বামীর বাড়িতে কখনও বাবার বাড়িতে থাকতেন। কিছুদিন আগে ওই যুবক দেশে ফেরার কথা জানান প্রিয়তমা স্ত্রীকে। প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের ভয়ে যখন সারা বিশ্ব কাঁপছে-তখনই স্বামীর দেশে ফেরার খবরটি যেনো আনন্দের পরিবর্তে বিষাদে পরিণত হয় স্ত্রীর কাছে। আতঙ্কে তিনি স্বামীর বাড়ি থেকে বাবার বাড়িতে চলে যান। 

ওই এলাকার বাসিন্দা মোস্তাফিজার রহমান জানান, এখন বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস আতঙ্ক চলছে। এ কারণে, স্বামীর আগমনে খুশি না হয়ে স্ত্রীও আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। তাই বাবার বাড়িতে চলে গেছেন স্ত্রী।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আবদুল হাকিম বলেন, করোনাভাইরাস নিয়ে আতঙ্কের কিছু নেই। বিদেশ ফেরতদের সংস্পর্শে না গেলে এবং করোনা প্রতিরোধে স্বাস্থ্য বিধি মেনে চললে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার কোন সম্ভাবনা নেই।

মন্তব্য করুন