চকরিয়ায় গৃহবধূকে তুলে নিয়ে গণধর্ষণ, গ্রেফতার ২

প্রকাশ: ০৫ এপ্রিল ২০২০   

চকরিয়া (কক্সবাজার) প্রতিনিধি

কক্সবাজারের চকরিয়ায় মহাসড়কে গাড়ির জন্য অপেক্ষায় থাকা এক গৃহবধূকে মোটরসাইকেলে তুলে নিয়ে গিয়ে একটি বাড়িতে আটকে রেখে গণধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। গত শুক্রবার উপজেলার লক্ষ্যারচর ইউনিয়নের উত্তর লক্ষ্যারচর ছিকলঘাট বাজারস্থ একটি বাড়িতে আটকে রেখে তাকে গণধর্ষণ করে।

এ ঘটনায় ধর্ষণের শিকার গৃহবধূ বাদী হয়ে রোববার থানায় মামলা করলে পুলিশ অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত ২ জনকে গ্রেপ্তার করেছে। এরপর তাদের আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়। ওই গৃহবধূকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) পাঠানো হয়েছে।

গ্রেপ্তার দু’জন হলেন- লক্ষ্যারচর ইউনিয়নের তিন নম্বর ওয়ার্ডের উত্তর লক্ষ্যারচর ছিকলঘাট গ্রামের মৃত সিরাজ মিয়ার ছেলে মো. মোজাম্মেল (৪২) ও একই এলাকার মৃত বাদশা মিয়ার ছেলে মো. জাফর আলম (২৮)।

পুলিশ জানায়, গত ২ এপ্রিল বিকেলে খুটাখালী ইউনিয়নের ওই গৃহবধূ (৩৫) চকরিয়া পৌরশহরে ডাক্তার দেখাতে যান। ডাক্তার না পেয়ে রাতে গাড়ির জন্য চিরিঙ্গায় মহাসড়কে অপেক্ষা করেন। একপর্যায়ে গাড়ি না পেয়ে হাঁটতে হাঁটতে ভুল করে মাতামুহুরী সেতুর পূবপাশে চলে যান। রাত সাড়ে ১০টার দিকে অভিযুক্ত মোজাম্মেল ও জাফর মোটরসাইকেলে সেখানে এসে ওই গৃহবধূকে বাড়িতে পৌঁছে দেওয়ার কথা বলে তুলে নিয়ে যায়। এরপর  মোজাম্মেলের বাড়ির একটি কক্ষে আটকে রেখে প্রাণনাশের ভয় দেখিয়ে তাকে রাতভর ধর্ষণ করে দু’জন। পরদিন ভোর ছয়টার কৌশলে ওই গৃহবধূ পালিয়ে বের হয়ে স্থানীয় লোকজনকে ঘটনাটা জানান।

এ ব্যাপারে চকরিয়া থানার ওসি মো. হাবিবুর রহমান বলেন, 'এ ঘটনায় মামলা নেওয়া ও ২ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাদের আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে এবং ধর্ষিতার ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালের ওসিসিতে পাঠানো হয়েছে।'