নোয়াখালীর সুবর্ণচর উপজেলায় আবুল কালাম (৫৫) নামের এক কৃষককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় জড়িত অভিযোগে পান্না আক্তার (২৪) নামে প্রতিবেশি এক গৃহবধূকে আটক করেছে পুলিশ।

নিহত আবুল কালাম উপজেলার পূর্ব চরবাটা ইউনিয়নের দক্ষিণ চর মজিদ ৯নং ওয়ার্ডের সামছুল হকের ছেলে। আটক পান্না আক্তার একই এলাকার রিয়াজ উদ্দিনের স্ত্রী। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

স্থানীয়রা জানান, কৃষক আবুল কালাম তার ঘরের পাশে কিছু ধানের খড় গাদা করে রাখেন। মঙ্গলবার বিকেলে পাশের বাড়ীর রিয়াজ উদ্দিন ও তার স্ত্রী পান্না ওই খড় লুট করে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এ নিয়ে বাকবিতণ্ডার একপর্যায়ে রিয়াজ ধাক্কা দিয়ে আবুল কালামকে মাটিতে ফেলে দেয়। পরে রিয়াজ, পান্না ও রিয়াজের মা হোসনে আরা এলোপাতাড়ি পিটিয়ে আবুল কালামকে মুমূর্ষু অবস্থায় ফেলে চলে যায়। সন্ধ্যার দিকে আবুল কালামের মৃত্যু হয়।

চরজব্বার থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) ইব্রাহিম খলিল জানান, বুধবার সকালে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য রিয়াজের স্ত্রী পান্না আক্তারকে আটক করা হয়েছে। নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে মামলার প্রস্ততি চলছে।