রংপুরে বদরগঞ্জে এসএসসি পরীক্ষার ফল প্রত্যাশী এক শিক্ষার্থীকে ডেকে নিয়ে হত্যা করেছে দূর্বৃত্তরা। শুক্রবার সকালে উপজেলার পৌর শহর এলাকা থেকে শ্যামল চন্দ্র মহন্ত ওরফে নয়ন নামের ওই শিক্ষার্থীর মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

নিহত নয়ন বদরগঞ্জ পৌর শহরের কলেজিয়েট উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ছিল।

নিহতের পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, প্রতিবেশী জুলফিকার নামের এক যুবক বৃহস্পতিবার রাতে নয়নকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায়। এরপর আর সে বাড়ি ফেরেনি। রাত গভীর হলে পরিবারের লোকজন আশপাশের এলাকায় খোঁজাখুঁজি করেও নয়নের সন্ধান পায়নি। পরে শুক্রবার সকালে বাড়ির পাশে স্কুলের বারান্দায় রক্তাক্ত অবস্থায় নয়নের মরদেহ দেখে এলাকাবাসী তার পরিবারের লোকজনকে খবর দেয়।

নিহতের মা প্রমিলা রানী মহন্ত জানান, নয়নকে রাতে কথা বলার জন্য ডেকে নেয় তার বন্ধু প্রতিবেশী জুলফিকার। এরপর নয়ন আর ফিরে আসেনি। শুক্রবার সকালে বাড়ির পাশের স্কুলের বারান্দায় পড়ে থাকা নয়নের মরদেহের সন্ধান পাওয়া যায়। তার ছেলেকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

এ ব্যাপারে বদরগঞ্জ থানার ওসি হাবিবুর রহমান হাওলাদার জানান, খবর পেয়ে সকালে ঘটনাস্থল থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। প্রাথমিক আলামত থেকে এই হত্যাকাণ্ডটি রহস্যজনক বলে ধারণা করা হচ্ছে। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।