কুড়িগ্রামের উলিপুরে করোনাভাইরাসের উপসর্গ জ্বর, সর্দি, কাশি, ও গলাব্যাথা নিয়ে এক ব্যক্তির (৪৫) মৃত্যু হয়েছে। রোববার রাতে উপজেলার দূর্গাপুর ইউনিয়নের গোড়াই মাষ্টার পাড়াগ্রামের নিজ বাড়িতে তিনি মারা যান।

জানা গেছে, ওই ব্যক্তি অন্য জেলার এক প্রবাসীর বাড়িতে কাজ করতেন। তিনি গত এক সপ্তাহ আগে টাঙ্গাইল থেকে বাড়িতে আসেন। এরপর থেকে তিনি জ্বর, সর্দি, কাশি ও গলা ব্যাথায় ভুগছিলেন। তিনি এলাকায় আসার পর স্থানীয়রা তাকে হোম কোয়ারেন্টিনে রাখেন। কোয়ারেন্টিনে থাকা অবস্থায় রোববার রাতে তিনি মারা যান।

স্থানীয় ইউপি সদস্য মিজানুর রহমান বলেন, শুনেছি ওই ব্যক্তি টাঙ্গাইলের এক প্রবাসীর বাড়িতে কাজ করতেন। ওই প্রবাসী দেশে আসায় তাকে বাড়ি পাঠানো হয়। বাড়িতে আসার পর থেকে তিনি এলাকায় বের হননি। রোববার রাতে তিনি মারা যান।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. সুভাষ চন্দ্র সরকার বলেন, সপ্তাহ খানেক আগে বাড়িতে আসেন। জ্বর, সর্দি ও কাশি নিয়ে রোববার রাতে তিনি মারা যান। আমরা তার, স্ত্রী ও ১২ বছরের মেয়েসহ ৩ জনের নমুনা সংগ্রহ করেছি।

উলিপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোয়াজ্জেম হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, পুলিশ ও স্বাস্থ্য বিভাগের লোকজন নমুনা সংগ্রহ করে নিয়ম অনুযায়ী দাফন করেছে। স্থানীয়রা কেউ এগিয়ে আসেনি।