ঈশ্বরগঞ্জে মাদ্রাসা ছাত্রীকে তুলে নেওয়ার অভিযোগ, মামলা

প্রকাশ: ২৮ জুন ২০২০   

ঈশ্বরগঞ্জ (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি

ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জে সপ্তম শ্রেণি পড়ুয়া এক মাদ্রাসা ছাত্রীকে তুলে নেওয়ার অভিযোগে সাইদুল ইসলাম (৩২) নামে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে থানায় মামলা হয়েছে। শনিবার রাতে ছাত্রীর বাবা মামলা দায়ের করেন। তবে পুলিশ অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি।

অভিযুক্ত সাইদুল ইসলাম উপজেলার সদর ইউনিয়নের সৈয়দ ভাকুরি গ্রামের মুনসুর উদ্দিনের ছেলে।

জানা যায়, সাইদুল ইসলাম প্রতিবেশী এক মাদ্রাসা ছাত্রীকে মাদ্রাসায় যাওয়া আসার পথে উত্ত্যক্ত করতো। বিষয়টি ছাত্রীটি তার বাবাকে জানলে সাইদুলকে নিষেধ করা হয়। উত্ত্যক্তের প্রতিবাদ করার পর ছাত্রীটিকে বিয়ের প্রস্তাবও পাঠায় সাইদুল। কিন্তু ছাত্রীর বাবা প্রস্তাব প্রত্যখ্যান করে। এতে ক্ষুব্ধ সাইদুল গত শুক্রবার রাতে ছাত্রীটির বাবা-মার ঘরে বাইরে থেকে তালা লাগিয়ে দাদির সাথে থাকা ছাত্রীটিকে গভীর রাতে তুলে নিয়ে যায়। ওই সময় ছাত্রীটি ও তার দাদির চিৎকারে আশপাশের লোকজন আসার আগেই ঘটনাস্থল ত্যাগ করে সাইদুল ও তার কয়েক সহযোগী। পরে শনিবার রাতে থানায় লিখিত অভিযোগ করেন ছাত্রীটির বাবা। এতে সাইদুল ইসলামসহ দুই জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরও অন্তত ৩ জনকে আসামি করা হয়েছে। পুলিশ রাতেই মামলাটি নথিভুক্ত করে।

ঈশ্বরগঞ্জ থানার ওসি মো. মোখলেসুর রহমান আকন্দ বলেন, ছাত্রীটিকে তুলে নেওয়ার ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। ছাত্রীটিকে উদ্ধারে এবং অভিযুক্তদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।