গাজীপুরে কলেজছাত্রীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ, ২ বন্ধু রিমান্ডে

প্রকাশ: ১৬ অক্টোবর ২০২০   

গাজীপুর প্রতিনিধি

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

গাজীপুরে এক কলেজছাত্রী সংঘবদ্ধ ধর্ষণের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় মোবাইল ফোনে ডেকে নিয়ে গাজীপুর মহানগরের শিমুলতলী এলাকায় তাকে ধর্ষণ করা হয়েছে বলে ওই ছাত্রী মামলা দায়ের করেছেন। 

এ ঘটনায় শুক্রবার আনন্দ ও মাসুদ রানা ২ যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। পরে আদালতে হাজির করলে আদালত তাদের দু’দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন। 

জানা যায়, নাঈম নামে এক সহপাঠী জরুরি কাজ আছে বলে ওই কলেজ ছাত্রীকে মোবাইল ফোনে ডেকে নেয়। পরে কৌশলে ছাত্রীকে নাঈম শিমুলতলী এলাকায় নিয়ে যান। এক পর্যায়ে শিমুলতলী স্কুল গেটে অপেক্ষায় থাকা শ্রীপুরের জৈনাবাজার এলাকার আবুল কালামের ছেলে মাসুদ রানা, ময়মনসিংহের কোতোয়ালি থানার গলগন্ডা গ্রামের নূরুল ইসলামের ছেলে আনন্দ ও সহপাঠী নাঈম তাকে ধর্ষণ করেন। এক পর্যায়ে চিৎকার শুনে আশপাশের লোকজন মেয়েটিকে উদ্ধার করে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতলে ভর্তি করেন। 

মহানগর পুলিশের সদর থানার ওসি আলমগীর ভূঞা বলেন, এ ঘটনায় রাতেই ওই ছাত্রী বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছেন। এরই মধ্যে আনন্দ ও মাসুদকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। আদালত তাদের দু’দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন। প্রধান আসামি নাঈমকে গ্রেপ্তারে পুলিশ কাজ করছে।