শুভ্র হত্যা: ইউপি চেয়ারম্যান রিয়াদুজ্জামানসহ চারজন রিমান্ডে

প্রকাশ: ২১ অক্টোবর ২০২০     আপডেট: ২১ অক্টোবর ২০২০   

ঈশ্বরগঞ্জ (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি

মাসুদুল হক শুভ্র

মাসুদুল হক শুভ্র

ময়মনসিংহের গৌরীপুরে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা মাসুদুল হক শুভ্র হত্যায় প্রধান অভিযুক্ত ইউপি চেয়ারম্যান রিয়াদুজ্জামান রিয়াদসহ চারজনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। 

বুধবার শুনানি শেষে রিয়াদকে তিন দিন, জাহাঙ্গীর আলম, রাসেল ও মজিবুর রহমানকে দু'দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন ময়মনসিংহ সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মাহবুবা আক্তার। এর আগে তাদের প্রত্যেকের সাত দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে হাজির করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা।

ময়মনসিংহ গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) ওসি শাহ কামাল আকন্দ বলেন, মামলাটি তাদের হাতে ন্যস্ত হয়েছে। এখন থেকে মামলাটি ডিবি তদন্ত করবে। গ্রেপ্তার হওয়া চার আসামিকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদের সুযোগ পেয়েছেন তারা। বাকি আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক মাসুদুল হক শুভ্রকে গত শনিবার রাতে কুপিয়ে হত্যা করা হয়। এ ঘটনায় নিহতের ভাই আবিদুর রহমান প্রান্ত বাদী হয়ে মইলাকান্দা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান ও উপজেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক রিয়াদুজ্জামান রিয়াদ, পৌরসভার মেয়র সৈয়দ রফিকুল ইসলামসহ ১৪ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরও কয়েকজনকে আসামি করে মামলা করেন। হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় তাৎক্ষণিক পুলিশ প্রধান অভিযুক্ত রিয়াদুজ্জামান রিয়াদ, জাহাঙ্গীর আলম, রাসেল ও মজিবুর রহমান আটক করে। পরে ওই মামলায় তাদের গ্রেপ্তার দেখানো হয়।

এদিকে, শুভ্র হত্যার প্রতিবাদে  বুধবার কর্মসূচি পালিত হয়েছে। এদিন গৌরীপুর মধ্যাবাজারে ছাত্রলীগ ফোরামের আয়োজনে প্রতিবাদ সভা হয়।

উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও সাবেক ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক মোফাজ্জল হোসেন খানের নেতৃত্বে এতে বক্তব্য দেন উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ডা. হেলাল উদ্দিন আহমেদ, সহসভাপতি অধ্যক্ষ রুহুল আমিন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ম. নূরুল ইসলাম, ইকবাল হোসেন জুয়েল, দপ্তর সম্পাদক শফিকুল ইসলাম মিন্টু, আবুল কালাম আজাদ, মাহফুজুল্লাহ, প্রণয় সরকার রুবেল, মিজানুর রহমান প্রমুখ।