মাদ্রাসাছাত্রকে মারধোরের অভিযোগে দুই শিক্ষক আটক

প্রকাশ: ২২ অক্টোবর ২০২০     আপডেট: ২২ অক্টোবর ২০২০   

জীবননগর(চুয়াডাঙ্গা) সংবাদদাতা

মাদ্রাসাছাত্র নাসিম

মাদ্রাসাছাত্র নাসিম

চুয়াডাঙ্গা জীবননগরে এক মাদ্রাসাছাত্রকে মারধোরের অভিযোগে দায়েরকৃত মামলায় মাজেদ হোসেন ও শাহীন হোসেন নামের দুই শিক্ষককে আটক করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার সকালে তাদেরেক আটক করা হয়। নির্যাতনের শিকার ওই ছাত্রের নাম নাসিম। সে উপজেলার কাশিপুর দারুল উলুম কওমি মাদ্রাসার দ্বিতীয় শ্রেণির ছাত্র।

পুলিশ ও নির্যাতনের শিকার নাসিম জানায়, বুধবার দুপুরে শিক্ষক মাজেদ হোসেন তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে তাকে মারধোর করে শ্রেণিকক্ষে আটকে রাখেন। জোহরের নামাজের সময় তাকে ছেড়ে দিলে সে মাদ্রাসা থেকে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এ সময় ওই মাদ্রাসার শিক্ষক শাহীন তাকে ফের ধরে নিয়ে এসে মারধোর করে শ্রেণিকক্ষে আটকে রাখেন। পরে এলাকাবাসী খবর পেয়ে সন্ধ্যায় তাকে উদ্ধার করে।

অভিযুক্ত শিক্ষক মাজেদ ও শাহীন বলেন, নাসিম অধিকাংশ সময় মাদ্রাসায় অনুপস্থিত থাকত। মাঝে মধ্যে মাদ্রাসা আসলেও ক্লাস না করে পালিয়ে যেতো। ভয় দেখানোর জন্য তাকে বেত্রাঘাত করা হয়েছে।

জীবননগর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সাইফুল ইসলাম ঘটনা সত্যতা স্বীকার করে জানান, নির্যাতনের শিকার ছাত্রের বাবা আলাউদ্দিন বাদী হয়ে বুধবার রাতে থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। বৃহস্পতিবার ভোরে অভিযুক্ত দুই শিক্ষককে আটক করে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।