মেহেরপুরে সমাজসেবা অফিসের মাঠকর্মীকে কুপিয়ে হত্যা

প্রকাশ: ২৩ অক্টোবর ২০২০   

মেহেরপুর প্রতিনিধি

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

মেহেরপুর শহরের তাঁতিপাড়ায় পৌর সমাজসেবা অফিসের মাঠকর্মী ফারুক হোসেনকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দৃর্বৃত্তরা। বৃহস্পতিবার রাত ১২টার দিকে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

নিহত ফারুক হোসেন শহরের তাঁতি পাড়ার শওকত আলীর ছেলে ও মেহেরপুর পৌর সমাজসেবা অফিসের মাঠকর্মী ছিলেন।

নিহতের মামা আলাউদ্দীন জানান, রাত আনুমানিক পৌনে বারটার দিকে ফারুক হোসেন বাড়ি ফিরছিল। এসময় বাড়ির অদূরে কয়েকজন দুর্বৃত্ত তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথেই তার মৃত্যু হয়। 

তিনি বলেন, ‌‌'আমাদের জানা মতে- তাকে মেরে ফেলার মতো কোন বিরোধ বা শত্রু ছিল না। কে বা কারা এ হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত তা অনুমান করা যাচ্ছে না।'

মেহেরপুর জেনারেল হাসাপাতলের জরুরি বিভাগে কর্মরত ডা. হাবিবুর রহমান জানান, নিহতের শরীরে এলোপাতাড়ি কোপানো ছিল। অতিরিক্ত রক্ত ক্ষরণের কারণে হাসপাতালে আনার পূর্বেই ফারুক হোসেন মারা গেছেন।

মেহেরপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শাহ দ্বারা খান জানান, পোস্টমর্টেম শেষে লাশ পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হয়েছে। নিহতের পরিবারের লোকজন মামলা করার প্রস্তুতি নিচ্ছে। খুনিদের ধরতে পুলিশ অভিযান চালাচ্ছে।

খবর পেয়ে মেহেরপুরের পুলিশ সুপার এসএম মুরাদ আলী হাসপাতালে ছুটে যান। এ সময় তিনি জানান, নিহতের বাড়ির পাশেই এ হত্যাকেণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। সুরতহাল রিপোর্টে নিহতের পিঠে ও ঘাড়ে কোপানো হয়েছে। প্রাথমিকভাবে এ হত্যার কোন ক্লু পাওয়া যায়নি। হত্যাকারীদের ধরতে পুলিশের একাধিক টিম মাঠে নেমেছে। দ্রুতই ঘাতকদের গ্রেফতার করা সম্ভব হবে বলে আশা করছি।