সাভারে ভুয়া কোম্পানি খুলে চাকরি দেওয়ার নামে সাধারণ মানুষের সঙ্গে প্রতারণা করে অর্থ হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগে সাতজনকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। বুধবার সন্ধ্যায় তেঁতুলঝোড়া কলেজ রোড এলাকায় তরিকুল ফোরস্টার সিকিউরিটি সার্ভিস লিমিটেডের কার্যালয়ে থেকে তাদের গ্রেপ্তার করে র‌্যাব-৪ এর সদস্যরা। পরে বৃহস্পতিবার দুপুরে তাদের আদালতে পাঠানো হয়েছে।

গ্রেপ্তাররা হলেন- নওগাঁ জেলার মো. সেলিম হোসেন (২৯), মানিকগঞ্জ জেলার মো. সোহেল রানা (২৪), তাসলিমা আক্তার (২০), নারায়ণগঞ্জের মো. আজিজুল ইসলাম (২২), বগুড়ার মো. সোহান (১৮), মাদারীপুরের মো. জাহাংগীর হোসেন (২১) ও ঢাকার ফারহানা আক্তার সীমু (১৮)।

বৃহস্পতিবার র‌্যাব-৪ এর সহকারী পুলিশ সুপার মো. জিয়াউর রহমান চৌধুরী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

র‌্যাব জানায়, বুধবার সন্ধ্যায় তরিকুল ফোরস্টার সিকিউরিটি সার্ভিস লিমিটেডের কার্যালয়ে অভিযান চালানো হয়। এসময় প্রতারণার কাজে ব্যবহৃত ২০০টি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি, ২৫টি জীবনবৃত্তান্ত, ৫টি অব্যাহতির ফরম, ৩০টি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তির ছোট ব্যানার, স্ক্যানার, সিপিইউ, মনিটর, ল্যাপটপ ও ১১টি মোবাইল জব্দ এবং ৭ প্রতারককে গ্রেপ্তার করা হয়। এসময় ওই প্রতিষ্ঠানটি থেকে প্রতারণার শিকার ১২ জন চাকরিপ্রার্থীকে উদ্ধার করেছে র‌্যাব সদস্যরা।

পুলিশ সুপার মো. জিয়াউর রহমান চৌধুরী বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেপ্তাররা জানিয়েছে- চাকরি দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়ে মানুষের কাছ থেকে টাকা নেওয়ার পর বিভিন্ন অফিসের ঠিকানা দিয়ে পাঠিয়ে দেওয়া হতো। সেসকল অফিসে গিয়ে ভুক্তভোগীরা কাজ না পেয়ে পুনরায় অফিসে এসে টাকা ফেরত চাইলে তাদের ভয়ভীতি দেখিয়ে ও গালাগালি করে তাড়িয়ে দিত প্রতারক চক্রটি।

আটকদের বিরুদ্ধে বুধবার রাতেই সাভার মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের ও বৃহস্পতিবার দুপুরে তাদের আদালতে পাঠানো হয়।