ঢাকা বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

মা-মেয়েসহ তিনজনকে পেটাল প্রতিবেশীরা

মা-মেয়েসহ তিনজনকে পেটাল প্রতিবেশীরা

মা-মেয়ে ও ছেলে কিশোরগঞ্জ ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। ফাইল ছবি

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি

প্রকাশ: ২৮ অক্টোবর ২০২৩ | ১৫:২৯ | আপডেট: ২৮ অক্টোবর ২০২৩ | ১৫:২৯

জমি নিয়ে বিরোধের জেরে করিমগঞ্জে মা-মেয়ে ও ছেলেকে বেধড়ক পিটিয়েছে প্রতিবেশীরা। আহতাবস্থায় তারা কিশোরগঞ্জ ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। গত ২৩ অক্টোবর হামলা হলেও পাঁচ দিন পর শনিবার একই পরিবারের আটজনের বিরুদ্ধে মামলাটি করা হয়েছে। 

আহতরা হলেন- করিমগঞ্জের নিয়ামতপুর ইউনিয়নের হাজীপাড়া গ্রামের বিল্লাল মিয়ার স্ত্রী শাহনাজ আক্তার হেপি, তাঁর মা হাফসা আক্তার ও ভাই খলিল মিয়া।

মামলার এজাহার ও আহতদের থেকে জানা যায়, জমি নিয়ে বিরোধে প্রতিবেশী তিন ভাই ওমর ফারুক, মো. ইউসুফ ও আব্দুল মালেক হুমকি দিচ্ছিলেন। একপর্যায়ে গত ২৩ অক্টোবর তারা ও তাদের ছেলেরা শাবল, রড ও লাঠি নিয়ে হামলা চালান। বসতঘরে ঢুকে প্রথমে হেপিকে মারধর ও শ্লীলতাহানি করেন। এ সময় তারা স্বর্ণালংকার ও গরু কেনার ৯০ হাজার টাকা নিয়ে যান।

হেপির চিৎকার শুনে ভাই খলিল ও মা হাফসা আক্তার এগিয়ে গেলে তাদেরও মারধর করা হয়। পরে তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। কিছুটা সুস্থ হলে গতকাল শনিবার ওমর ফারুক, মো. ইউসুফ, আব্দুল মালেক ও তাদের ছেলেরাসহ আটজনের নামে এবং অজ্ঞাত দু-তিনজনের বিরুদ্ধে মামলাটি করেছেন হেপি।

এ বিষয়ে প্রধান আসামি ওমর ফারুক বলেন, তারা তাদের জমির ওপর দিয়ে জোর করে রাস্তা নিতে চান। তবে তাদের মারধর করেননি। কারা করেছে তাও জানেন না। অলংকার চুরিসহ মারধরের মিথ্যা মামলা করেছেন বলে দাবি তাঁর।

করিমগঞ্জ থানার ওসি মিজানুর রহমান বলেন, মামলার পর আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

আরও পড়ুন

×