নরসিংদীর বেলাবতে এক মুক্তিযুদ্ধ সংগঠকের বাড়ির আঙিনায় মাটি কাটার সময় গুলিভর্তি একটি বাক্স উদ্ধার করা হয়েছে। এতে ৩ হাজার ৪৬০ পিস রাইফেলের গুলি ছিল। মঙ্গলবার রাতে উপজেলার রউজিলাব ইউনিয়নের চর উজিলাব গ্রামের মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক ও কৃষক নেতা প্রয়াত আ. হাইয়ের বাড়ির পাশের কলাবাগানের কাছ থেকে মাটির নিচ থেকে এসব গুলি উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ ও স্থানীয়দের ধারণা, মুক্তিযুদ্ধের সময় এসব গুলি মুক্তিযোদ্ধাদের ব্যবহারের জন্য মাটির নিচে মজুদ রাখা হয়েছিল।

স্থানীয়দের বরাত দিয়ে বেলাব থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাফায়েত হোসেন পলাশ জানান, শ্রমিকরা প্রয়াত আব্দুল হাইয়ের বাড়ির আঙিনার কলাবাগানের পাশে মাটি কাটছিলেন। এক পর্যায়ে সন্ধ্যায় মাটির নিচে গুলিভর্তি একটি বাক্স দেখতে পান তারা। এসময় বাড়ির মালিক মুক্তিযোদ্ধা আবদুল হাইয়ের ছেলে বায়েজিদকে গুলির বাক্স পাওয়ার কথা জানালে তিনি থানায় খবর দেন। পরে পুলিশ এসে স্থানীয়দের সহায়তায় রাত ১০টা পর্যন্ত মাটি খুঁড়ে ৩ হাজার ৪৬০ পিস রাইফেলের গুলি উদ্ধার করে।

প্রয়াত কৃষক নেতা আ. হাইয়ের ছেলে মো. বায়েজিদ হোসেন বলেন, যুদ্ধের সময় আমাদের বাড়িতে মুক্তিযোদ্ধাদের ক্যাম্প ছিল। মুক্তিযোদ্ধারাই মাটির নিচে এসব গুলি রেখেছিলেন।

চরউজিলাব ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আক্তারুজ্জামান বলেন, মাটির নিচে পাওয়া স্বাধীনতা যুদ্ধে ব্যবহৃত এসব গুলি যুদ্ধকালীন স্মৃতি বহন করে। এখানে যেহেতু মুক্তিযোদ্ধাদের ক্যাম্প ছিল সেহেতু গুলি পাওয়া যেতেই পারে।

১৯৭১ সালে আবদুল হাইয়ের বাড়িতে মুক্তিযোদ্ধাদের ক্যাম্প ছিল বলে জানিয়েছেন স্থানীয় মুক্তিযোদ্ধারাও।