সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলার গোমানতলী শওকতনগর এলাকায় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে প্রাইভেটকার নদীতে পড়ে ২ জনের মৃত্যু হয়েছে। তারা হলেন- আরাফাত হোসেন (১৮) ও ইব্রাহিম হোসেন (২৩)। 

বৃহস্পতিবার রাতে এই দুর্ঘটনা ঘটে। এসময় তাদের বন্ধু ইমাম হোসেন, সাইফুল্লাহ ও হাসান আহত হয়েছেন। বন্ধুরা মিলে বাড়ি থেকে শ্যামনগর উপজেলা সদরে ঘুরতে যাওয়ার সময় চুনার ব্রিজ সংলগ্ন এলাকায় দুর্ঘটনায় পড়েন তারা।

দুর্ঘটনায় নিহত আরাফাতের চাচাত ভাই মারুফ বিল্লাহ ও শরিফুল ইসলাম জানান, আরাফাত হোসেন তার নিজ প্রাইভেটকার নিয়ে বন্ধুদের সঙ্গে শ্যামনগর সদরে যাচ্ছিল। রাত আটটার দিকে চুনা ব্রিজ এলাকায় পৌঁছে বাক নেওয়ার সময় চালক নিয়ন্ত্রণ হারালে প্রাইভেটকারটি পাশের চুনা নদীতে পড়ে যায়। এসময় স্থানীয়রা দ্রুত নদীতে নেমে গাড়ির গ্লাস ভেঙে ভিতরে আটকে পড়া পাঁচজনকে উদ্ধার করে শ্যামনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়ার পর চিকিৎসকরা দু’জনকে মৃত ঘোষণা করেন। অপর তিনজনের মধ্যে ইমাম হোসেনের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন চিকিৎসক।

শ্যামনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. ওমর ফারুক চৌধুরী জানান, আরাফাত ও ইব্রাহিমকে মৃত অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়েছে।

শ্যামনগর থানার ওসি মো. নাজমুল হুদা বলেন, নদীতে পড়া প্রাইভেটকারে আটকে পড়াদের মধ্যে দু’জন মারা গেছে।