আন্তর্জাতিক নারী দিবস উপলক্ষে ব্যতিক্রমী উদ্যোগ নিয়েছে নেত্রকোনা জেলা প্রশাসন। গাড়িচালক পদে জেলায় এই প্রথম নিয়োগ দেওয়া হচ্ছে প্রশিক্ষিত তিন নারীকে। তারা হলেন- সুজাতা আক্তার, নাজনীন আরা শাওন ও ইরফামা জাহান লিয়া

সোমবার নিজ কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব উইমেন্স কর্নারের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে জেলা প্রশাসক কাজি মো. আবদুর রহমান এ কথা জানান। জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে এ কর্নার উদ্বোধন করা হয়। জেলা ক্রীড়া সংস্থা ও লেডিস ক্লাবের সভাপতি কাজি সুমান্না আখতার এর উদ্বোধন করেন।

অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. সুহেল আহম্মদের সভাপতিত্বে এ উপলক্ষে অনুষ্ঠিত আলোচনায় আরও বক্তব্য দেন জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের স্থানীয় সরকার শাখার উপপরিচালক জিয়া আহমেদ সুমন, নেত্রকোনা সদর ইউএনও মাসুদা আক্তার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোরশেদা খাতুন প্রমুখ। এ সময় সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান তুহিন আক্তার, নারীনেত্রী সৈয়দা সামছুন্নাহার বিউটি, কোহিনূর বেগমসহ বিভিন্ন স্কুল-কলেজের শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও সংবাদকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। পরে আন্তর্জাতিক নারী দিবস উপলক্ষে জেলা শহরের মোক্তারপাড়ায় পাবলিক হলে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, ওই তিন নারী নেত্রকোনা কারিগরি স্কুল অ্যান্ড টেকনিক্যাল কলেজ থেকে গাড়ি চালনায় প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত। এ ছাড়া নারী দিবসে পাঁচ নারী শিক্ষার্থীকে শিক্ষাবৃত্তি, সবজিচাষ, আত্মকর্মসংস্থানের জন্য কয়েকজনকে আর্থিক সহায়তা, নির্যাতিত নারীকে আইনি সহায়তা এবং করোনা প্রতিরোধে মাস্ক তৈরির জন্য নারী উদ্যোক্তা কামরুন্নাহার লিপিকে আর্থিক সহায়তা দেওয়া হয়।

জেলা প্রশাসক কাজি মো. আবদুর রহমান বলেন, ওই তিন নারীকে গাড়ি চালনায় অধিকতর প্রশিক্ষণ দেওয়ার পর কাজে লাগানো হবে। এ ছাড়া বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব উইমেন্স কর্নার সব নারীর জন্য উন্মুক্ত থাকবে।