দশ তলা ভবনের নকশা অনুমোদন নিয়ে নিয়মবহির্ভূতভাবে বাড়তি দুটি ফ্লোর তৈরি করায় ভবনে ছিদ্র করে দিয়েছে চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (সিডিএ)। এ সময় নিচতলার গাড়ি রাখার জায়গায় তৈরি করা বেশ কয়েকটি দোকান ও ডুপ্লেপ ঘরও গুঁড়িয়ে দেওয়া হয়। সোমবার বিকেলে নগরের মোগলটুলী কলেজ রোডের কাটা বটগাছ এলাকার মো. জানে আলমের বহুতল ভবনে সিডিএর ভ্রাম্যমাণ আদালত উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করে। এতে নেতৃত্ব দেন সিডিএর স্পেশাল মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মো. সাইফুল আলম চৌধুরী। অভিযানে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) অর্ধশতাধিক সদস্য এবং ৩৫ জন শ্রমিক অংশ নেন। অভিযানে সহযোগিতা করেন ইমারত নির্মাণ কমিটির চেয়ারম্যান আবু ইসা আনছারী, অথরাইজড অফিসার মো. হাসান, সহকারী অথরাইজড অফিসার মো. ওসমান ও পেশকার ফয়েজ আহমদ।

সিডিএ সূত্রে জানা যায়, নকশাবহির্ভূত ভবন তৈরির বিষয়ে অ্যাডভোকেট তালেব বাদী হয়ে হাইকোর্টে মামলা করেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে হাইকোর্ট সিডিএকে ওই ভবনের নকশাবহির্ভূত অংশে উচ্ছেদ অভিযান চালিয়ে প্রতিবেদন জমা দিতে বলেন। লকডাউন, প্রাকৃতিক দুর্যোগসহ নানা কারণে কয়েক মাস বন্ধ থাকার পর সোমবার এ অভিযান চালানো হয়েছে। ভবনটির ১১ ও ১২ তলার ছাদে ছিদ্র করে দেওয়া হয়েছে। চলমান এই অভিযান অব্যাহত থাকবে।

বিষয় : চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ সিডিএ

মন্তব্য করুন