করোনার ঊর্ধ্বগতি নিয়ন্ত্রণ না হওয়ায় দ্বিতীয় দফায় আরও এক সপ্তাহ লকডাউন বাড়ানো হয়েছে। বৃহস্পতিবার সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক এস এম মোস্তফা কামালের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির ভার্চুয়াল সভায় এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। 

ফলে আগামী ১৭ জুন রাত ১২ টা পর্যন্ত জেলাব্যাপী লকডাউন কার্যকর থাকবে। লকডাউন চলাকালীন সময়ে বিশেষ পরিসেবা বাদে সব ধরনের যানবাহন, দূরপাল্লার পরিবহন ও দোকানপাট বন্ধ থাকবে। সকাল ৯টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত কাঁচাবাজার ও নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের দোকান খোলা থাকবে। 

সাতক্ষীরা জেলা প্রশাসক ও জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি এস এম মোস্তফা কামাল বলেন, বৃহস্পতিবার দুপুরে জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সভায় করোনার সর্বশেষ পরিস্থিতি নিয়ে ভার্চয়াল সভায় বিস্তারিত আলোচনা হয়। সভায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা অব্যাহতভাবে বৃদ্ধি পাওয়ায় আরও এক সপ্তাহ লকডাউনের সময়সীমা বাড়ানোর সিদ্ধান্ত হয়েছে।   

সাতক্ষীরা সিভিল সার্জন ও জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সদস্য সচিব ডা. হুসাইন সাফায়াত বলেন, সাতক্ষীরায় করোনার ঊর্ধ্বগতি বৃদ্ধি পাওয়ায় গত ৫ জন থেকে জেলাব্যাপী লকডাউন শুরু হয়। কিন্তু লকডাউন চলাকালীন সময়ে করোনা পরিস্থিতির তেমন কোনো উন্নতি হয়নি। আক্রান্তের সংখ্যা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। তিনি বলেন প্রথম দফায় যখন লকডাউন ঘোষণা করা হয় তখন করোনা সংক্রমনের হার ছিল ৫৩ শতাংশ। কিন্তু বর্তমানে জেলায় সংক্রমণের হার ৫৯ দশমিক ৩৪ শতাংশ পর্যন্ত বৃদ্ধি পেয়েছে। বিধায় দ্বিতীয় দফায় আরও এক সপ্তাহ লকডাউন বাড়িয়ে আগামী ১৭ জুন রাত ১২ টা পর্যন্ত করা হয়েছে। দ্বিতীয় দফা লকডাউন শেষে আবারও জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সভা করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হবে।

এ দিকে সাতক্ষীরায় গত ২৪ ঘণ্টায় ৯৫ জনের জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৪৮ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। আক্রান্তের হার ৫০ দশমিক ৫২ শতাংশ। এছাড়া করোনা উপসর্গ নিয়ে সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে বৃহস্পতিবার ভোরে আরও ৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। করোনা আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত জেলায় মৃত্যু হয়েছে ৪৯ জনের। 

মন্তব্য করুন