সিলেট সিটি করপোরেশন (সিসিক) এলাকার ভাঙাচোরা আম্বরখানা-শাহী ঈদগাহ-টিলাগড় সড়ক সংস্কার নিয়ে দীর্ঘদিন অচলাবস্থা চলছিল। সিসিক না সড়ক ও জনপথ (সওজ) ওই সড়কের সংস্কার করবে তা নিয়ে ছিল এই টানাপোড়েন। এ নিয়ে সমকালে সংবাদও প্রকাশ হয়। নানা দেন-দরবারের পর অবশেষে সিসিক গুরুত্বপূর্ণ সড়কটির সংস্কার করতে রাজি হয়েছে।

সিসিক মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী জানিয়েছেন, এ সড়ক সংস্কারে ২২ কোটি টাকার দরপত্র প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। তিনি আগামী মাসে কাজ শুরুর প্রত্যাশা করেন।

জানা গেছে, আম্বরখানা-শাহী ঈদগাহ-টিলাগড় সড়কের অবস্থা বর্ষা মৌসুম শুরুর আগ থেকে বেহাল। ওই সড়কের উভয় পাশ বর্ধিত করে বছর দেড়েক আগে ড্রেন নির্মাণকাজ শুরু করে সিসিক। রাস্তা বর্ধিতকরণের কাজ গত ফেব্রুয়ারিতে শেষ হয়। এ অবস্থায় মূল সড়কটিও ভেঙে বড় বড় গর্ত তৈরি হয়েছে। সড়ক দিয়ে প্রতিদিন পাথরবোঝাই ট্রাক চলায় অবস্থা আরও বেহাল হয়ে পড়ে। একইভাবে টিলাগড় এলাকার সড়ক ও আম্বরখানা-মদিনা মার্কেট সড়কের পাঠানটুলা এলাকার কয়েকশ গজের অবস্থাও খুবই নাজুক।

আম্বরখানা-শাহী ঈদগাহ সড়ক সংস্কারের কাজ কে করবে তা নিয়ে টানাপোড়েন চলার সময় সড়কের পুরো অংশ সংস্কার না করে বর্ধিত অংশ করার কথা জানায় সিসিক। কিন্তু সওজ দাবি করে, সড়কটি তাদের হলেও কাজ করতে গিয়ে সিসিক ভেঙে ফেলেছে। তাই তাদেরই সংস্কার করার কথা। এ অবস্থায় বৃহস্পতিবার সিসিকের ২০২১-২২ অর্থবছরের বাজেট বক্তৃতায় মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী নিজেই সিসিকের তত্ত্বাবধানে সংস্কারের বিষয়টি খোলাসা করেন।

তিনি জানান, সওজের সড়কটি প্রশস্তকরণ ও ড্রেন নির্মাণের কাজ করেছে সিটি করপোরেশন। এখন মূল সড়কটিও সিসিক সংস্কার করবে।