মিরসরাইয়ের জোরারগঞ্জ থানার জোরারগঞ্জ ইউনিয়নের মধ্যম সোনাপাহাড় গ্রামের মোস্তফার বাড়িতে স্বামী-স্ত্রী ও তাদের ছোট ছেলেকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। নিহতরা হলেন- মোস্তফা মিয়া (৫৬),  তার স্ত্রী  জোসনা আক্তার (৪৫) ও ছেলে আহমদ হোসেন (২৫)। এই ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য মোস্তফার বড় ছেলে  ছাদেক হোসেন সাদ্দামকে (৩০) আটক করেছে পুলিশ।

বুধবার গভীর রাতে এই ঘটনা ঘটে।  খবর পেয়ে সকালে জোরারগঞ্জ থানা পুলিশ এসে ঘটনাস্থল ঘিরে রেখেছে। পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) খবর দেওয়া হয়েছে। তারা এলে লাশ উদ্ধার করা হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ। এই ঘটনায় স্থানীয়দের মধ্যে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে।

জোরারগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নুর হোসেন মামুন বলেন, হত্যাকাণ্ডের খবর পেয়ে আমরা ঘটনাস্থলে এসেছি। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিহতের বড় ছেলেকে আটক করা হয়েছে। পারিবারিক কলহের কারণে বুধবার রাতে ৩ টা থেকে ৪টার মধ্যে এই ঘটনা ঘটেছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। পিবিআইকে ঘটনাস্থলে আসতে খবর দেয়া হয়েছে। তারা এলে লাশগুলো উদ্ধার করে পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে।