করোনাভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রন ঠেকাতে ফেনীর সোনাগাজীর বগাদানা ইউনিয়নে দক্ষিণ আফ্রিকা ফেরত এক প্রবাসীর বাড়িতে লাল পতাকা টানিয়ে দিয়েছে প্রশাসন।

বুধবার বিকালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) এ এম জহিরুল হায়াত প্রবাস ফেরত ওই যুবকের বাড়িতে লাল পতাকা টাঙান।একই সাথে ওই প্রবাসীর হোম কোয়ারেন্টাইন নিশ্চিত করেছেন

প্রবাসী ওই যুবকের নাম এনামুল হক। তিনি উপজেলার বগাদানা ইউনিয়নের আড়কাইম এলাকায় ইসহাক মুক্তার বাড়ির করিমুল হকের ছেলে। গত ২৬ নভেম্বর তিনি দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে দেশে ফিরেছেন।

 ইউএনও এ এম জহিরুল হায়াত বলেন,  বুধবার দুপুরে আফ্রিকা থেকে এনামুল হক নামে ওই বাংলাদেশি  সোনাগাজী উপজেলার আড়কাইম এলাকায় নিজ বাড়িতে এসেছেন বলে জানতে পারি।পরে তাৎক্ষনিক স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ইছহাক খোকনসহ ইউপি সদস্য ও গ্রাম পুলিশ পাঠিয়ে তার বাড়িতে কোভিড-১৯ সংযুক্ত লেখা লাল পতাকা টাঙানোসহ কঠোর হোম কোয়ারেন্টাইন নিশ্চিতের জন্য তাদেরকে নির্দেশ দেওয়া হয়। পাশাপাশি উপজেলার কোথাও আর কেউ আফ্রিকা থেকে দেশে আসলে দ্রুত তার সম্পর্কে প্রশাসনকে তথ্য দিয়ে সহায়তা করার জন্য বলা হয়েছে।

বগাদানা ইউপি চেয়ারম্যান ইছহাক খোকন বলেন, ইউএনওর নির্দেশে তার ইউনিয়নে আফ্রিকা থেকে আসা ওই যুবকের বাড়ি লকডাউন করাসহ তাকে ১৪দিনের হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকার বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। ।কোয়ারেন্টাইনে থাকাকালে তার কোন সহায়তার প্রয়োজন হলে আমাদের অবহিত করার জন্য বলেছি।

দক্ষিণ আফ্রিকা ফেরত প্রবাসী এনামুল হক বলেন,গত নভেম্বর মাসের ১৭ তারিখে আমি বাংলাদেশ আসার জন্য দক্ষিন আফ্রিকার জোহানেসবার্গ বিমান বন্দরে প্রবেশ করলে কর্তৃপক্ষ আমাকে ৮ দিন কোয়ারেন্টাইনে রাখেন।পরে ২৬ নভেম্বর বিমানে উঠার অনুমতি দিলে দেশে ফেরত আসি।

তিনি আরও বলেন, দক্ষিণ আফ্রিকার যে এলাকায় আমি ছিলাম সেখানে ওমিক্রন সংক্রমণ ছিল না। দেশে ফেরত আসার পর সতর্কতার জন্য প্রশাসনের নির্দেশনা মেনে চলছি।