বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস বলেছেন, ‘খালেদা জিয়াকে বিষ প্রয়োগ করা হয়েছে। উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে বিদেশে নেওয়া হলে তাকে বিষ প্রয়োগের বিষয়টি প্রমাণ হতে পারে। এ আশঙ্কায় সরকার তাকে বিদেশ যেতে অনুমতি দিচ্ছে না।’

শুক্রবার বরিশালে অনুষ্ঠিত বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এ অভিযোগ করেন মির্জা আব্বাস। দলীয় চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তি ও উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশ যাওয়ার অনুমতি দেওয়ার দাবিতে কেন্দ্র ঘোষিত কর্মসূচি অনুযায়ী বিভাগীয় সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

নগরের জেলা স্কুল মাঠে দুপুর আড়াইটা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত সমাবেশ চলে। বরিশাল বিভাগের ছয় জেলা-উপজেলা এবং নগরের ওয়ার্ড থেকে বিএনপি নেতাকর্মীরা খণ্ড খণ্ড মিছিল নিয়ে সমাবেশে যোগ দেন। মাঠ ভরে গিয়ে আশপাশের সড়কেও বিএনপি নেতাকর্মীরা অবস্থান নেন। সমাবেশ চলাকালে জলকামানসহ বিপুল সংখ্যক পুলিশ জেলা স্কুল-সংলগ্ন সড়কে অবস্থান করে। এ ছাড়া নগরের গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে পুলিশ মোতায়েন ছিল।

সমাবেশে বিশেষ অতিথি ছিলেন বিএনপির সহসভাপতি ব্যারিস্টার শাহজাহান ওমর (বীর-উত্তম), যুগ্ম মহাসচিব মজিবর রহমান সরোয়ার ও সাংগঠনিক সম্পাদক বিলকিস আক্তার জাহান শিরিন। সভাপতিত্ব করেন মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক মনিরুজ্জামান ফারুক।

মির্জা আব্বাস বলেন, ‘এ সরকারের পূর্বসূরিরা দেশের প্রথম রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানকে হত্যা করেছে। এখন খালেদা জিয়াকে দুনিয়া থেকে সরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা চলছে। খালেদা জিয়া ও তারেক রহমানকে আপনাদের এত ভয় কিসের? আপনারা যদি এতই জনপ্রিয় হন, তাহলে সাহস থাকলে ভোটে আসেন।’

যুগ্ম মহাসচিব মজিবর রহমান সরোয়ার বলেন, ‘আরেকটি গণআন্দোলন করে খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে। এজন্য সবার আগে নিজেদের মধ্যে সমন্বয় ও ঐক্য দরকার।’