নড়াইলে যৌতুকের দাবিতে স্ত্রীকে হত্যার দায়ে স্বামী গাউচ মিনাকে (৪০) ফাঁসি ও পঞ্চাশ হাজার টাকা জরিমানার আদেশ দিয়েছেন আদালত। 

সোমবার বিকেলে জেলার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনালের বিচারক সানা মো. মাহরুফ হোসাইন এ আদেশ দেন। জজকোর্টের পিপি অ্যাডভোকেট এমদাদুল ইসলাম রায়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

এ মামলায় অপর আসামি গাউচের মা সাহেদা বেগমকে খালাস দিয়েছেন আদালত। গাউচ জেলার নড়াগাতি থানার খাসিয়াল গ্রামের মৃত খবির মিনার ছেলে।

মামলার বিবরণে জানা যায়, গাউচ মিনার সঙ্গে ২০১১ সালের মার্চ মাসে একই গ্রামের সনিয়া বেগমের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে গাউচ ও তার মা সাহেদা বেগম যৌতুকের দাবিতে সনিয়ার ওপর নির্যাতন শুরু করে। বিয়ের এক মাস পর ওই বছরের ১৭ এপ্রিল রাতে সনিয়াকে শ্বাসরোধে হত্যার পর লাশ ওড়না দিয়ে ঘরের আড়ার সঙ্গে ঝুলিয়ে রাখে সাউচ। এ ঘটনায় গাউচ ও তার মা সাহেদাকে আসামি করে নড়াগাতি থানায় মামলা দায়ের করেন নিহতের ভাই টুটুল বিশ্বাস। মামলায় ১৬ জনের সাক্ষ্য শেষে হত্যার অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় আদালত এ রায় দেন।