নাটোরের সিংড়ায় জোড়া খুনের মামলায় সাত জনের সাত বছর করে কারাদণ্ড  ও একজনকে খালাস দিয়েছেন আদালত। এছাড়া দণ্ড প্রাপ্ত প্রত্যেককে ১০ হাজার টাকা করে জরিমানা ও অনাদায়ের আরও ছয় মাস করে কারাদণ্ডের আদেশ দেওয়া হয়েছে।

সোমবার দুপুরে নাটোরের জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক শরিফ উদ্দিন এই রায় দেন।

কারাদণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- মো. আব্দুল কুদ্দুস, মোসলেম উদ্দিন,মো. দুলাল,আফসার আলী,শাহাদত হোসেন ,রেজাউল ইসলাম ও মো. ওয়াদুদ। এছাড়া আব্দুল জলিল নামে এক আসামি খালাস পেয়েছেন।

আদালত সূত্রে জানা যায়, ১৯৯৪ সালের ২৭ জানুয়ারী উপজেলার চৌগ্রাম ইউনিয়নের মৌগ্রামে শবে বরাতের রাতে সিন্নি বিতরণকে কেন্দ্র করে আক্কাস আলী ও  সিকিম প্রাংয়ের সাথে কুদ্দুস আলীর সমর্থকদের সংঘর্ষ হয়। হামলায় আক্কাস ও সিকিম আহত হন। আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়ার পথে তাদের মৃত্যু হয়। এ ঘটনায় নিহত সিকিমের ছেলে আমির হামজা বাদী হয়ে ১০ জনকে অভিযুক্ত করে সিংড়া থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। দীর্ঘ ২৮ বছর মামলার স্বাক্ষী প্রমান গ্রহণ শেষে আদালতের বিচারক সোমবার ৭ জনকে সাত বছর করে কারাদণ্ড ও একজনকে খালাসের আদেশ দেন। মামলার অপর দুই আসামি মৃত্যুবরণ করেছেন। মামলার রায় পড়ে শোনানোর সময় অভিযুক্তরা আদালতে হাজির ছিলেন। পরে অভিযুক্তদের কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয়।