পাবনার ঈশ্বরদীতে শিশু রহিম হত্যা মামলায় আসামি রাসেলকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও ১১ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন আদালত। মঙ্গলবার দুপুরে পাবনার অতিরিক্ত দায়রা জজ আদালতের বিচারক শ্যাম সুন্দর রায় এ আদেশ দেন।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, ২০১৪ সালের ২৪ ফেব্রুয়ারি ঈশ্বরদী উপজেলার নতুন হাট এলাকায় জগলু শাহর শিশু ছেলে রহিমকে (৭) মানিকনগর এলাকায় একটি লিচু বাগানে ঘাস কাটার কথা বলে ডেকে নিয়ে যায় একই উপজেলার রহিমপুর গ্রামের আসাদুল মেকারের ছেলে রাসেল। সেখানে রাসেল শিশুটিকে বলাৎকারের পর কাচি দিয়ে গলাকেটে হত্যা করে। এ ঘটনায় নিহত রহিমের বাবা জগলু শাহ বাদী হয়ে ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৪ তারিখে ঈশ্বরদী থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন।

এ মামলায় আসামি রাসেলকে গ্রেপ্তার করা হলে হত্যার দায় স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেয়। সাক্ষ্য প্রমাণের ভিত্তিতে অপরাধ সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত হওয়ায় আদালত আসামি রাসেলকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও এগারো হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ছয়মাসের কারাদণ্ডের আদেশ দেন।

মামলায় রাষ্ট্র পক্ষে আইনজীবী ছিলেন অতিরিক্ত পিপি সালমা আক্তার শিলু, আসামি পক্ষে ছিলেন মকবুল আহমেদ বাবু।